Parul

মহানগর ডেস্ক: কিছুটা শিথিল হয়েছিল কোভিড নিয়ম। বন্দিদশা কাটিয়ে পাহাড়ে গিয়েছেন বহু ভ্রমণপ্রেমী। উত্তরাখণ্ডেও বেড়েছিল পর্যটকদের আনাগোনা। এরই মধ্যে রুদ্রমূর্তি ধারণ করল।

ads

হিমাচল প্রদেশে মেঘভাঙা বৃষ্টি। রাতারাতি বেড়েছে বিয়াস নদীর জলস্তর। ধর্মশালার ম্যাকলয়েশগঞ্জের বসুনাগে আছড়ে পড়ে হরপা বান। রাস্তায় দাঁড় করানো ছিল গাড়ি। জানা গিয়েছে ১০ টি গাড়ি ভেসে গিয়েছে জলে। যার মধ্যে বেশিরভাগই পর্যটকদের গাড়ি।

কাংগরা স্পেশাল এসপি বিমুক্ত রঞ্জন জানিয়েছেন, ‘বড়রকমের হরপা বান এসেছিল আচমকা। বাসুনাগের রাস্তায় পর্যটকদের অনেক গাড়ি রাখা ছিল। সেগুলো ভেসে গিয়েছে এবং ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। বাড়ি, রাস্তার ধারের দোকানেও ঢুকে গিয়েছিল জল। সৌভাগ্যবশত হতাহতের কোনও খবর এখনও পাওয়া যায়নি।’

ধর্মশালার সমস্ত নদী এবং জলাশয়ের জল এখন উপচে পড়ছে। কুলুতে এই একই ছবি। বিপদ সীমায় রয়েছে মাঞ্জি। হিমাচল প্রদেশের অন্য এলাকাতেও হয়েছে মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টি। ধর্মশালার ও পালমাপুরে বৃষ্টি হয়েছে যথাক্রমে ১৮৪ মিলিমিটার ও ১৫৫ মিলিমিটার।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here