ডেস্ক: আদালতের রায়ে সমকামিতা বৈধ। কিন্তু সেই সমকামিতার অপরাধেই পুড়িয়ে হত্যা করা হল এক আপ নেতাকে। এই নারকীয় ঘটনাটি ঘটেছে উত্তর প্রদেশের গাজিয়াবাদে। এদিন এক পোড়া গাড়ির ভিতর থেকে উদ্ধার করা হয় নবীন দাস নামের ওই আপ নেতার দগ্ধ লাশ। ঘটনার জেরে গাজিয়াবাদের সাহিবাবাদ থানায় খুনের অভিযোগ দায়ের করেছে নবীনের পরিবার।

সূত্রের খবর, বুধবার রাতে দিল্লির বাসিন্দা নবীন দাসকে অপহরণ করে দিল্লির গাজিয়াবাদে নিয়ে আসে দুষ্কৃতীরা। সেখানে গাড়ির মধ্যে আটকে রেখে জীবন্ত হত্যা করা হয় সমকামী নবীন দাসকে। এরপর ভোর ৩ টে নাগাদ পুলিশ এসে উদ্ধার করে তাঁর দেহ। এই ঘটনায় তায়াব কুরেশি, তার দাদা তালিব কুরেশি এবং তাদের বন্ধু সমর খানের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছে নবীনের পরিবার। প্রাথমিক তদন্তে পুলিশের অনুমান, তায়াব কুরেশির সঙ্গে সম্পর্ক ছিল সমকামী নবীনের। একটি ভিডিওকে মাধ্যম করে তায়াবকে ব্ল্যাকমেল করত নবীন। আর সেখান থেকে বাঁচতেই এই খুনের চক্রান্ত বলে অনুমান পুলিশের। আর এই কাজে তাঁকে সাহায্য করে তালিব ও সমর।

পুলিশের তরফে আরও জানানো হয়েছে বুধবার রাতে নবীনকে ফোন করে ডাকে দুষ্কৃতীরা। সেখানে খাবারের মধ্যে ঘুমের ওষুধ দিয়ে ঘুম পাড়ান হয় তাঁকে। তাঁর এটিএম থেকে টাকাও তোলা হয়। এরপর গাড়ির মধ্যে তাঁকে ঢুকিয়ে দিয়ে গাড়ি সমেত আগুন ধরিয়ে দেয় দুষ্কৃতীরা। গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here