suicide

মহানগর ডেস্ক: আত্মহত্যা করলেন অটোচালকের বিরুদ্ধে মিথ্যা অপহরণ এবং ধর্ষণের অভিযোগ আনা ফার্মাসির ছাত্রী। হায়দরাবাদের ঘাটকেসরে এক আত্মীয়ের বাড়িতে বুধবার সকালে আত্মহত্যা করেছেন ১৯ বছরের ওই তরুণী। প্রাথমিক তদন্তে উঠে এসেছে, অতিরিক্ত ঘুমের ওষুধ খাওয়াতেই মৃত্যু হয়েছে তাঁর। তিনি অবসাদে ভুগছিলেন বলেও জানা গিয়েছে।

বুধবার সকালে আত্মীয়ের বাড়িতে ওই তরুণী অচৈতন্য অবস্থায় পড়েছিলেন। তখন হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন।

গত মাসে ওই তরুণী এক অটোচালকের বিরুদ্ধে অপহরণ এবং ধর্ষণের অভিযোগ এনেছিলেন। সেই অভিযোগ পেয়ে তদন্তে নামে রাজকোন্ডা পুলিশ। প্রায় ১০০-র বেশি সিসিটিভি ফুটেজ পরীক্ষা করে মিথ্যা অভিযোগের রহস্য উদ্‌ঘাটন করে পুলিশ। ১০ ফেব্রুয়ারি এই সত্য সামনে আসে। তার পর থেকেই আত্মীয়স্বজনের হাতে তাঁকে ‘হেনস্থা’ হতে হচ্ছিল বলে অভিযোগ। সেই অবসাদ থেকেই আত্মহত্যা বলে মনে করছে পুলিশ।

এ নিয়ে ঘাটকেসর থানার অফিসার এন চন্দ্রবাবু বলেছেন, ‘‘ওই তরুণী কোনও সুইসাইড নোট লিখে যায়নি। তাঁর পরিবারের লোকের দাবি, অবসাদে ভুগছিলেন তিনি। হেনস্থার ভয়ে কলেজে যাওয়া বন্ধ করে দিয়েছিলেন। কী অসুবিধা হচ্ছিল, তা জানতে আমরা তাঁর বন্ধু এবং পরিবারের লোকেদের জিজ্ঞাসাবাদ করছি।’’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here