masood_china

ডেস্ক: পুলওয়ামা হামলার পর জইশ জঙ্গি মাসুদ আজহারকে নিয়ে এককথায় দু’ভাগ হয়েছে বিশ্ব। ভারতের পাশে দাঁড়িয়ে একদিকে মাসুদকে নিষিদ্ধ করার চেষ্টা করছে আমেরিকা, ফ্রান্স, রাশিয়ার মতো দেশ। অন্যদিকে, পাকিস্তানের পাশে দাঁড়িয়ে প্রথম থেকেই তাকে সমর্থন করে আসছে বেজিং। ভারতের উপত্যকায় হামলায় পাকিস্তানের যুক্ত থাকার প্রমাণ ভারত দিলেও তা মানতে চায়নি ইসলামাবাদ। ইমরানের পাশে দাঁড়িয়ে পাকিস্তানকে সমর্থন করে বেজিংও, পাশাপাশি রাষ্ট্রপুঞ্জে মাসুদ আজহারকে ‘আন্তর্জাতিক জঙ্গি’ তকমা দেওয়ার প্রস্তাবে বার বার ভেটো দিয়েছে তারা। এবার মাসুদের জঙ্গি হামলার সমস্ত প্রমাণ চিনের হাতে তুলে দিল ভারত।

বিদেশমন্ত্রক থেকে জানানো হয়েছে, প্রথম থেকেই জঙ্গি হামলায় জইশ এবং জইশ প্রধান মাসুদের যুক্ত থাকার বিষয়টি নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিল বেজিং। রাষ্ট্রপুঞ্জেও মাসুদকে নিষিদ্ধ করার প্রক্রিয়ায় একাধিকবার বাধা দেয় চিন। মাসুদের অন্তর্ভূক্তি দেখাতেই জইশের সন্ত্রাস নিয়ে সমস্ত তথ্যই চিনের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে। মনে করা হচ্ছে, এইবার রাষ্ট্রপুঞ্জে মাসুদ আজহারকে নিষিদ্ধ করতে আর সেভাবে বাধা দিতে পারবে না চিন। উল্লেখ্য, জইশ প্রধান মাসুদকে ‘আন্তর্জাতিক জঙ্গি’ ঘোষণা করা হবে কিনা, তা নিরাপত্তা পরিষদের সর্বসম্মতির ওপরই নির্ভর করছে।

আগামী ২৫ থেকে ২৭ এপ্রিল, ‘বেল্ট অ্যান্ড রোড’ ফোরামের আন্তর্জাতিক সম্মেলন হতে চলেছে বেজিংয়ে। তার আগে মাসুদকে নিয়ে ভারতের এই প্রমাণ পেশ মাস্টারস্ট্রোক হিসেবেই দেখছে রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের একাংশ। কারণ সেই সম্মেলনে ৪০ দেশের রাষ্ট্রপ্রধানের মুখোমুখি হবেন চিনা প্রেসিডেন্ট শি জিং পিং। মাসুদ নিয়ে প্রমাণ পাওয়ার পর বেজিং কীভাবে প্রতিক্রিয়া দেয় তার দিকেই এখন নজর বিশ্বের।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here