ডেস্ক: প্রতিরক্ষার ক্ষেত্রে ফের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ‘মেক ইন ইন্ডিয়া’ প্রকল্পের মুকুটে নয়া পালক জুড়ল। শুক্রবার সেনাবাহিনীতে যোগ দিতে চলেছে কে ৯ বজ্র এবং ৭৭৭ কামান। মহারাষ্ট্রের দেববালিতে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে, যেখানে এই দুই কামানকে ভারতীয় সেনাবাহিনীর হাতে তুলে দেওয়া হবে। এদিনের এই অনুষ্ঠানে হাজির থাকবেন প্রতিরক্ষা মন্ত্রী নির্মলা সীতারমন, সেনা প্রধান বিপিন রাওয়াত এবং প্রতিরক্ষা প্রতিমন্ত্রী সুভাষ ভামরে।

পিটিআই সূত্রে খবর, ভারতীয় সেনাবাহিনীর হাতে মোট ১০০টি কে ৯ কামান এবং ১৪৫টি এম ৭৭৭ কামান তুলে দেওয়া হচ্ছে। আগামী ২ বছরের মধ্যে এক এক করে সেনাবাহিনীতে ঢুকে যাবে বলে জানা গিয়েছে। এসবের জন্য খরচ পড়বে প্রায় ৯,৩৬৬ কোটি টাকা। মার্কিন বাহিনী এই কামান ব্যবহার করে। এরই সঙ্গে অস্ট্রেলিয়া, কানাডা এবং সৌদি আরবও ব্যবহার করে। মাত্র ৩০ সেকেন্ডের মধ্যে ৩ রাউন্ড গোলা ছুঁড়তে পারে এই কামান।

উল্লেখ্য, সামরিকভাবে দেশকে আরও শক্তিশালী করতে আন্তর্জাতিক সাহায্য ছাড়াও নিজেদের ঘরের মাটিও শক্ত করছে প্রতিরক্ষামন্ত্রক। রাশিয়া, ইজরায়েল থেকে ক্ষেপনাস্ত্র কেনার পাশাপাশি ভারতীয় প্রযুক্তিতে তৈরি অগ্নি ও ব্রাহ্মস নিয়েও বেশ আত্মবিশ্বাসী কেন্দ্রীয় সরকার। কিছুদিন আগেই রাশিয়ার সঙ্গে সামরিক চুক্তি করেছে ভারত। মার্কিন সরকারের নিষেধাজ্ঞার ছায়া থাকলেও সেই ছায়া সরিয়ে চুক্তি সেরেছেন পুতিন-মোদী। পরে ইসরায়েলের সঙ্গেও প্রতিরক্ষা সংক্রান্ত চুক্তির কথা সামনে এসেছে। সূত্রের খবর, সামরিক অস্ত্রভাণ্ডার আরও মজবুত করতে আমেরিকার সঙ্গেও ক্ষেপণাস্ত্র এবং ড্রোন কেনার কথাবার্তা চালাচ্ছে ভারত। যার সবুজ সঙ্কেত দিয়েছে ট্রাম্প সরকারও।

রাশিয়া, আমেরিকা, ইজরায়েলের পাশাপাশি দেশীয় প্রযুক্তির ক্ষেপনাস্ত্র দিয়ে এককথায় দেশকে মুড়ে ফেলতে চাইছে কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষামন্ত্রক। শুধু আকাশ পথে নয়, জলপথেও এই ভাবনাকে বাস্তবায়িত করতে উদ্যোগী হয়েছে তারা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here