ডেস্ক: ভারতের সংবিধানে সংবাদমাধ্যমকে গণতন্ত্রনের চতুর্থ স্তম্ভ হিসাবে ব্যাখ্যা করা হলেও, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর আমলেই সবচেয়ে বেশি কণ্ঠরোধ করা হয়েছে এই স্তম্ভের। একথা আমরা বলছি না। মার্কিন কংগ্রেসের মানবাধিকার কমিশনের একটি রিপোর্টে এমনই দাবি করা হয়েছে।

২০১৭ সালে ভারতে সংবাদমাধ্যমের উপর হওয়া বিভিন্ন হামলার প্রেক্ষিতে মার্কিন কংগ্রেসে একটি রিপোর্ট পেশ করা হয়। সেই রিপোর্টে লেখা হয়, ‘ভারতের সংবিধান সংবাদমাধ্যমকে সর্বোচ্চ অধিকার দেয়। কিন্তু এখানে অনেক সংবাদমাধ্যমকেই স্বাধীন মত প্রকাশের অধিকার দেওয়া হয়না। সাধারণত এই অধিকারকে সম্মান করে থাকে সে দেশের সরকার। কিন্তু সম্প্রতি এমন কিছু ঘটনা ঘটেছে যেখানে দেখা গিয়েছে সরকার সংবাদমাধ্যমের উপর চাপ দিচ্ছে এবং তাদের প্রতিনিধিদের হেনস্থাও করা হচ্ছে।

সম্প্রতি দুনিয়া জুড়ে ঘটে যাওয়া সংবাদমাধ্যমের উপর হামলা নিয়ে মার্কিন কংগ্রেসে একটি রিপোর্ট পেশ করেছিল সেই দেশের মানবাধিকার কমিশন। সেখানেই উল্লেখ করা হয় ২০১৬ সালের জানুয়ারি থেকে ২০১৭ সালের এপ্রিল মাস পর্যন্ত ভারতে ৫৪ বার সাংবাদিকদের উপর হামলার ঘটনা ঘটেছে। এছাড়াও সেই রিপোর্টে আরও জানানো হয়েছে, এই সময়ের মধ্যে ৩টি নিউজ চ্যালেন বন্ধ করে দেওয়ার মতো ঘটনা ঘটেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here