মহানগর ওয়েবডেস্ক: সারা বিশ্বে হু হু করে বাড়ছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। তবুও অধিকাংশ দেশেই জনসংখ্যার অনুপাতে পরীক্ষার হার বেশ অনেকটাই কম। এই অসুবিধার কথা মাথায় রেখেই অত্যন্ত স্বল্পমূল্যে করোনা পরীক্ষার যন্ত্র তৈরি করে ফেললেন একদল বিজ্ঞানী, যার প্রধান এক ভারতীয়। করোনার স্যাম্পেল অতি দ্রুত ঘুরিয়ে সেন্টরিফিউগাল বলের মাধ্যমে এই যন্ত্র পরীক্ষা সম্পন্ন করে।

আমেরিকার স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা এই যন্ত্র বানিয়েছেন। বিজ্ঞানী দলের প্রধান ভারতীয় মনু প্রকাশ। তাঁরা এই যন্ত্রের নাম দিয়েছেন হ্যান্ডিফিউজ। এই যন্ত্রে খুব জোরে করোনার স্যাম্পেল ঘোরালে লালারস থেকে করোনার জিনোম আলাদা হয়ে যেতে পারে। ফলে খুব সহজেই করোনা পরীক্ষা সম্পন্ন হয়। লাগে না বিদ্যুৎ।

মনু প্রকাশ জানিয়েছেন, এই যন্ত্রে করোনা পরীক্ষা খুবই সহজ। নমুনা সংগ্রহ থেকে তা পরীক্ষা করতে খুব জোর সময় লাগে এক ঘণ্টা। আর যে জিনিসপত্র দিয়ে এই যন্ত্র তৈরি, সেগুলির একেকটির মূল্য সবচেয়ে বেশি ৫ ডলার। খুব সহজেই একজন বিশেষজ্ঞ এই যন্ত্র তৈরি করে নিতে পারবেন।

প্রসঙ্গত, দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ছয় লক্ষ ৯৭ হাজার ছাড়িয়ে গিয়েছে। সোমবার সকালে স্বাস্থ্যমন্ত্রকের তথ্য অনুযায়ী বর্তমানে ভারতে আক্রান্তের সংখ্যা ৬,৯৭,৪১৩। মাত্র পাঁচদিনে ভারতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা পাঁচ লাখ থেকে ছয় লাখ হয়েছিল। দেশে করোনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১৯,৬৯৩। মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যায় এখন রাশিয়া’কে পিছনে ফেলে বিশ্বের তিন নম্বর দেশ ভারত। শেষ ২৪ ঘন্টায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ২৪,২৪৮ জন, যা একটি রেকর্ড। এই সময়ে প্রাণ হারিয়েছেন ৪২৫ জন। এখনও পর্যন্ত ৪,২৪,৪৩৩ জন করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ থেকে পুরোপুরি সুস্থ হয়ে উঠেছেন। শেষ ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ১৫,৩৫০ জন। ভারতে এই মুহূর্তে এক্টিভ কেস ২,৫৩,২৮৭।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here