bengali news

Highlights

  • কালো পতাকা, হাতে স্লোগান লেখা ব্যানার
  • কোনওভাবেই যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে ঢুকতে দেওয়া হবে না রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়কে
  • রীতিমতো উত্তাল হয়ে উঠল ক্যাম্পাস চত্বর

 

মহানগর ওয়েবডেস্ক: গেট পেরিয়ে তখনও ভাল করে ঢোকেনি রাজ্যপালের ভিভিআইপি কনভয়, পথ আটকে দাঁড়াল যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্ররা। কালো পতাকা, হাতে স্লোগান লেখা ব্যানার। কোনওভাবেই যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে ঢুকতে দেওয়া হবে না রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়কে। সোমবার দুপুরে এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে রীতিমতো উত্তাল হয়ে উঠল ক্যাম্পাস চত্বর।

রাজ্যপালের থেকে সংবর্ধনা নেওয়া হবে না এমনটা জানিয়ে সমাবর্তন অনুষ্ঠান আগেই বাতিল করেছিলেন পড়ুয়ারা। যে ঘটনায় ইতিমধ্যেই অপমানিত বোধ করেছেন ধনকড়। এরপর সোমবার দুপুর ৩ টোয় যাদবপুরে কোর্ট বৈঠকে যোগ দেওয়ার কথা ছিল তাঁর। যদিও এই বৈঠকে রাজ্যপালকে অংশ নিতে দেওয়া হবে না বলে স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছিলেন পড়ুয়ারা। সেই পথে হেঁটে সোমবার দুপুর একটা থেকেই রাজ্যপাল বিরোধী প্ল্যাকার্ড হাতে ক্যাম্পাসে জড়ো হন পড়ুয়ারা। রাজ্যপালের গাড়ি গেট পার হতেই ঘিরে ধরা হয় সেই গাড়ি। চলতে থাকে স্লোগান ও বিক্ষোভ।

উল্লেখ্য, যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্তন বাতিলকে ঘিরেই সমস্যার সূত্রপাত। পড়ুয়ারা রাজ্যপালের কাছ থেকে পুরস্কার নেবে না সেটা স্পষ্ট হওয়ার পরই সমাবর্তন বাতিল করেন উপাচার্য সুরঞ্জন দাস। এতপরই তেতে ওঠেন ধনকড়। রাজভবনের তরফে বিশ্ববিদ্যালয়কে চিঠি লিখে জানানো হয়, বিশেষ সমাবর্তন বাতিলের যে সিদ্ধান্ত কর্মসমিতি নিয়েছে, তা তাদের এক্তিয়ার বহির্ভূত। সেই সঙ্গে হুঁশিয়ারি দিয়ে রাজ্যপাল জানান, এই অসম্মান ভয়ঙ্কর পরিণতি ডেকে আনতে পারে। এমনকী, এই সমাবর্তনকে ‘বেআইনি’ বলেও উল্লেখ করা হয়েছে রাজ্যপালের চিঠিতে। সেখানে স্পষ্ট বলা হয়েছে, বেআইনি সমাবর্তনে শংসাপত্র নিয়ে বিপাকে পড়তে পারেন পড়ুয়ারাও। এরপর একরকম বিনা নিমন্ত্রনেই যাদবপুরে এসে হাজির হন রাজ্যপাল। একইভাবে তাঁকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন পড়ুয়ারা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here