ISI নয়, ইরানে কুলভূষণকে আটক করে পাকিস্তানের হাতে তুলে দেয় এক জঙ্গি সংগঠন

0
319
kolkata bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: কুলভূষণ নাকি ‘র’ এজেন্ট। গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে তাঁকে নাকি পাকিস্তান থেকে গ্রেফতার করে পাক গোয়েন্দা সংস্থা আইএসআই। তবে পাকিস্তানের এই যুক্তি শুরু থেকেই নাচক করে আসছে ভারত। ভারতের দাবি, ইরানে ব্যবসার কাজে গিয়েছিলেন কূলভূষণ সেখান থেকে অন্যায় ভাবে তাঁকে অপহরণ করে পাকিস্তানে আনা হয়। কূলভূষণ মামলা বর্তমানে আন্তর্জাতিক আদালতে বিচারাধীন। আজ সেই মামলার রায় ঘোষণা করবে আদালত। কিন্তু তার আগে আরও এক চাঞ্চল্যকর তথ্য প্রকাশ করল ভারত।

আন্তর্জাতিক আদালতে এখনও পর্যন্ত কূলভূষণ মামলার শুনানিতে ব্যকফুটেই থেকেছে পাকিস্তান। পাকিস্তানে কূলভূষণকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে যে দাবি পাক সরকারের তরফে বারবার বলা হয়েছে তা খারিজ করে দিয়েছে ভারত। উল্টে ভারতের তরফে যে দাবি করা হয়েছে তা হল, ব্যবসার কাজে ইরানের চারবাহারে গিয়েছিলেন কূলভূষণ। আর সেখানে আইএসআই নয়, জইশ আল আদল নামে এক জঙ্গি সংগঠন অপহরণ করে কূলভূষণকে। তারাই পরে তাঁকে তুলে দেয় আইএসআইয়ের হাতে। পরে কূলভূষণকে নিয়ে এক মিথ্যা গল্প ফাঁদে ইসলামাবাদ। ইতিমধ্যেই ওই জঙ্গি সংগঠনকে নিষিদ্ধ করেছে আমেরিকা।

উল্লেখ্য, গত ২৫ মার্চ ২০১৬ সালে গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগ তুলে কূলভূষণকে আটক করেছিল পাকিস্তান। ২০১৭ সালের ১১ এপ্রিল পাকিস্তানের সাময়িক আদালত মৃত্যুদণ্ডের সাজা শোনায় কূলভূষণকে। এর ঠিক পরেই ৮ মে ২০১৭ সালে কূলভূষণের মুক্তির দাবিতে আন্তর্জাতিক আদালতের দ্বারস্থ হয় ভারত। এরপর এই মামলায় মৃত্যুদন্ডের উপর স্থগিতাদেশ দেয় আন্তর্জাতিক আদালত। ২৫ ডিসেম্বর ২০১৭ সালে কূলভূষণের সঙ্গে পাকিস্তান জেলে সাক্ষাৎ করে কূলভূষণের মা ও স্ত্রী। সেখানে তাঁদের হেনস্থা করা হয় বলে অভিযোগ। আজ এই মামলার রায় ঘোষণা করতে পারে আন্তর্জাতিক ন্যায় আদালত। এখন সেদিকেই তাকিয়ে রয়েছে গোটা দেশ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here