মহানগর ওয়েবডেস্ক: দক্ষিণ কোরিয়ার সর্বাধিনায়ক তথা স্বৈরাচারি শাসক কিম জং উন নাকি মারা গিয়েছেন। দু’দিন আগে নানা মহলে এহেন খবর ছড়িয়ে পড়ে। আন্তর্জারিত মহলে মারাত্মক চাঞ্চল্য তৈরি হয়। তবে অবশেষে সব জল্পনার অবসান হল। এদিন দক্ষিণ কোরিয়ার সরকারি উপদেষ্টা চুং ইন মুন জানান, উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উন বেঁচে রয়েছেন। এবং বর্তমানে তিনি সুস্থ।

যদিও উত্তর কোরিয়ার তরফে সরকারিভাবে এখনও কোনও তথ্য এই বিষয়ে জানানো হয়নি। তবে দক্ষিণ কোরিয়া প্রশাসন জানিয়েছে, কিম গত ১৩ এপ্রিল থেকে ওনস্যান প্রদেশে রয়েছেন। এবং বর্তমানে তিনি সুস্থ রয়েছেন বলেও দাবি করা হয়েছে। উত্তর কোরিয়ার শাসকের শারীরিক অবস্থা খতিয়ে দেখতে সম্প্রতি পিয়ংইয়ংয়ে চিকিৎসক প্রতিনিধি দল পাঠিয়েছে চিন।

তবে গত ৪৮ ঘণ্টা আগে পরিস্থিতিটা মোটেও এরকম ছিল না। হংকং টিভি বিস্ফোরক দাবি করে করে জানায়, কিম জং উন নাকি প্রয়াত হয়েছেন। শুধু তাই নয়, কিমের মৃতদেহের ছবিও ভাইরাল করে দেওয়া হয় সোশ্যাল মিডিয়ায়। ঘটনাচক্রে দু’সপ্তাহ আগে অস্ত্রোপচার হয় কিম জং উনের। তার পর থেকেই মধ্য তিরিশের নেতার শরীর ভালো যাচ্ছে না বলে খবর। এরমধ্যেই দক্ষিণ কোরিয়ার সংবাদমাধ্যমের তরফে জানানো হয়, সংকটজনক অবস্থায় রয়েছেন কিম জং উন। এরপরই হং কং টিভির খবরে বিশ্বাস করে নিয়েছিল সকলে। তবে শেষ পর্যন্ত সেই খবর ভুয়ো বলেই জানা গেল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here