Home Featured ধোপে টিকল না CBI-এর দাবি, পত্রপাঠ আবেদন খারিজ হাইকোর্টের

ধোপে টিকল না CBI-এর দাবি, পত্রপাঠ আবেদন খারিজ হাইকোর্টের

0
ধোপে টিকল না CBI-এর দাবি, পত্রপাঠ আবেদন খারিজ হাইকোর্টের
Parul

মহানগর ডেস্ক: ফের ধাক্কা খেল কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা সিবিআই। তাঁদের ভিনরাজ্যে নারদ মামলা স্থানান্তরের আবেদন খারিজ। আজ সিবিআই-এর এই আবেদন খারিজ করে দিল কলকাতা হাইকোর্ট। সেইসঙ্গে শোনা যাচ্ছে, এখনই সুপ্রিম কোর্টে যাওয়ার কথা ভাবছে না সিবিআই।

উল্লেখ্য, আজ সকালে নারদ মামলার শুনানি শুরু হতেই ৪ হেভিওয়েটের অন্তর্বর্তী জামিন মঞ্জুরের কথা ওঠে। বলা হয় গৃহবন্দি থাকতে হবে চার হেভিওয়েটকে। সিবিআই পাহারায় গৃহবন্দি থাকতে হবে তাঁদের। যদিও ভারপ্রাপ্ত বিচারপতি ও অন্য বিচারপতির এই ইস্যুতে ভিন্ন মত থাকায় সেই মামলা চলে যায় বৃহত্তর বেঞ্চে। এদিন জামিন মঞ্জুর করেছিলেন বিচারপতি অরিজিত্‍ বন্দ্যোপাধ্যায়। জামিন মঞ্জুরের বিরোধিতা করেন ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি।

বিরোধিতা করেন ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি রাজেশ বিন্দাল।জেল হেফাজত থেকে মুক্তি পেলেও থাকতে হবে গৃহবন্দি অবস্থায়। ৪ জনকে থাকতে হবে গৃহবন্দি অবস্থায়। মামলা পাঠানো হয়েছে বৃহত্তর বেঞ্চে। ততদিন পর্যন্ত থাকতে হবে গৃহবন্দি অবস্থায়। এদিকে আলোচনায় জন্য সময় চেয়েছেন হেভিওয়েটদের আইনজীবী।

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি নারদ মামলায় রাজ্যের দুই প্রবীণ মন্ত্রী সুব্রত মুখোপাধ্যায় ও ফিরহাদ হাকিম , বিধায়ক মদন মিত্র এবং কলকাতার প্রাক্তন মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায় সিবিআই-এর হাতে গ্রেফতার হন। ওই চার জনের অন্তর্বর্তীকালীন জামিন মঞ্জুর করেছিল সিবিআইয়ের বিশেষ আদালত। কিন্তু সোমবার রাতেই ওই নির্দেশকে চ্যালেঞ্জ করে হাই কোর্টের দ্বারস্থ হয় সিবিআই। হাই কোর্টের প্রধান বিচারপতির ডিভিশন বেঞ্চ ওই রাতেই অন্তর্বর্তীকালীন জামিনের নির্দেশে স্থগিতাদেশ দেয়। ওই দিনই সিবিআই নারদ মামলা ভিন্‌রাজ্যে সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার আবেদনও করে। মামলা স্থানান্তরের আবেদনে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এবং রাজ্যের আইনমন্ত্রী মলয় ঘটক এবং কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়কে পক্ষ হিসাবে যুক্ত করে সিবিআই। দু’টি মামলারই শুনানি ছিল বুধবার।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here