kolkata bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: যে হারে দূষণ বাড়ছে তাতে মানুষের শ্বাস নেওয়া আর সম্ভব হয়ে উঠছে না। দেশের মধ্যে অন্যতম দূষিত শহর হচ্ছে কলকাতা। এমনই চাঞ্চল্যকর তথ্য রিপোর্টে প্রকাশিত হয়েছে। প্রথম স্থানে রয়েছে দিল্লি। রাস্তায় যেভাবে জঞ্জাল পোড়ানো হচ্ছে তাতে দূষণের মাত্রা বাড়ছে। যেখানে সেখানে আর জিনিস জ্বালানো যাবে না। কেউ জ্বালালেই হাতেনাতে ধরা পড়বে এবং গ্রেফতারও হতে পারে। তাই এবার দূষণ রুখতে কলকাতা পুলিশের তরফ থেকে অভিনব উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। শুক্রবার কলকাতা পুলিশের তরফেক প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে জানানো হয়, জঞ্জাল এবং আবর্জনার স্তুপে আগুন জ্বালানো যাবে না। আবর্জনার স্তুপে আগুন লাগার ফলে চারিদিকে দূষণ ছড়ায় যা শরীরের পক্ষে ক্ষতিকারক। যদি কেউ তা করে থাকেন তাহলে তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

তবে কোন জিনিস পোড়ানো যাবে না এই বিষয়ে একটি তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। সেখানে রয়েছে, টায়ার, প্লাস্টিক, সিএফএল বাল্ব, রঙ, লাইট, হাসপাতালের নোংরা জিনিস, মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষুধ, ভাঙা থার্মোমিটার, ব্যাটারি, ইনজেকশন। এই বিষয়ে পুলিশ কমিশনার অনুজ শর্মা জানান, শুক্রবার প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে যেই নির্দেশিকাগুলো জারি করা হয়েছে তা সকলেই মানতে হবে। কেউ যদি এই নির্দেশিকা না মেনে চলেন তাহলে তার ভারতীয় দণ্ডবিধির ১৮৮ ধারায় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। জরিমানা হবে এবং সেই সঙ্গে জেলেও যেতে হতে পারে। প্রতিটি এলাকায় নজর রাখা হবে।

জানা গিয়েছে, ৩ জুলাই থেকে এই নিয়ম লাগু করা হয়েছে। আগামী ৩১ আগষ্ট পর্যন্ত এই নিয়ম লাগু থাকবে। দিনের পর দিন যেভাবে দূষণের মাত্রা বেড়ে যাচ্ছে সেই কথা মাথায় রেখেই এই ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। যে পরিমাণের জিনিস পোড়ানো হচ্ছে তাতে মাটি এবং বায়ু দূষিত হচ্ছে। অতিরিক্ত দূষণের কারণে আবহাওয়ার পরিবর্তন হচ্ছে এবং নানা সমস্যা দেখা দিচ্ছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here