kolkata news

Highlights

  • প্রকাশ্য দিবালোকে আস্ত বিলকে মাঠে পরিণত করছে জমি মাফিয়ারা
  • গোটা ঘটনার জন্য প্রশাসনের বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলেছেন খোদ শাসক দলের নেতা
  • জমি মাফিয়াদের ভয়ে সব দেখেও মুখে কুলুপ এঁটেছে স্থানীয় বাসিন্দারা

নিজস্ব প্রতিনিধি, মালদা: প্রকাশ্য দিবালোকে আস্ত বিলকে মাঠে পরিণত করছে জমি মাফিয়ারা। সেই জমি আবার প্লট করে বিক্রি করা হচ্ছে। এদিকে, শহরের বেশ কিছু এলাকার নিকাশি ব্যবস্থা ওই বিলের ওপর নির্ভরশীল। এতে প্রভাব পড়ছে শহরের নিকাশি ব্যবস্থার ওপরেও। গোটা ঘটনার জন্য প্রশাসনের বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলেছেন খোদ শাসক দলের নেতা তথা ইংরেজবাজার পুরসভার ভাইস চেয়ারম্যান।

ইংরেজবাজার পুরসভার পশ্চিমদিকে ৩ ও ২৯ নম্বর ওয়ার্ড লাগোয়া চাতরা বিল। বেশ কয়েক বছর থেকেই জমি মাফিয়ারা সেই বিল ভরাটের কাজ শুরু করেছে। প্রথমদিকে রাতের অন্ধকারে বিল ভরাট করা হলেও এখন প্রকাশ্য দিবালোকে চলছে বিল ভরাটের কাজ। কিছুদিন আগে মন্ত্রী সাধন পাণ্ডে সেই জায়গা পরিদর্শন করে জমি মাফিয়াদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপ করতে জেলা প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছিলেন। তারপরেও প্রকাশ্য দিবালোকে চলছে বিল ভরাটের কাজ। জমি মাফিয়াদের ভয়ে সব দেখেও মুখে কুলুপ এঁটেছে স্থানীয় বাসিন্দারা। স্থানীয়দের দাবি, মুখ খুললেই প্রাণ হারাতে হবে।

ঘটনা প্রসঙ্গে পুরসভার ভাইস চেয়ারম্যান দুলাল সরকার জানান, বেআইনি ভাবে জলা ভরাট হওয়ায় শহরের কিছু এলাকার জল নিষ্কাশন হচ্ছে না৷ এই ভরাট বন্ধ করা বিএল অ্যান্ড এলআরও আর পুলিশের কাজ৷ চেয়ারম্যান নীহাররঞ্জন ঘোষ প্রশাসনের কাছে অভিযোগ জানিয়েছিলেন৷ সেই অভিযোগের পরে বিএল অ্যান্ড এলআরও কয়েকটি গাড়িও ধরেছিলেন৷ তারপর কিছুদিন এসব বন্ধ ছিল৷ ফের জলা ভরাটের কাজ চালু হয়েছে৷ তবে এনিয়ে কেউ কোনও অভিযোগ জানালে আমরা ব্যবস্থা নিতে পারি৷ জলা ভরাট হয়ে যাওয়ায় শহরের নিকাশি ব্যবস্থা ভেঙে পড়েছে। কাউন্সিলররা জলায় তৈরি বাড়ির মিউটেশন করে দেওয়ার জন্য চেয়ারম্যানের কাছে আর্জি জানাচ্ছেন৷ অর্থাৎ গোড়াতেই গলদ রয়েছে৷

জলা ভরাট রুখতে প্রশাসনের কাছে অভিযোগ জানিয়েছেন মালদা পরিবেশ দূষণ প্রতিরোধ কমিটির সম্পাদক নারাণচন্দ্র সাহা৷ তাঁর অভিযোগ, একাধিকবার অভিযোগ জানিয়েও কোনও ফল মেলেনি। প্রশাসনের মুখ ফিরিয়ে নেওয়া দেখেই তিনি অনুমান করছেন, এই ঘটনার পেছনে প্রশাসনের একাংশ জড়িত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here