নিজস্ব প্রতিবেদক, বারাকপুর: সেন্ট জেভিয়ার্স স্কুলে সেপটিক ট্যাংকের ভিতরে দুই কর্মীর মৃতদেহ উদ্ধারকে ঘিরে শনিবার ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়ায় খড়দহর রুইয়া এলাকায়। মাত্র ২৪ ঘন্টার মধ্যেই সেই ঘটনার জেরে গ্রেপ্তার করা হল লেবার কন্ট্রাক্টর নারায়ন কামিলাকে। রবিবার ভোর রাতে নারায়ন বাবুকে তার বাড়ি বসিরহাটের সন্দেশখালি থেকে গ্রেপ্তার করে খড়দা থানার পুলিশ।

জানা গিয়েছে, নারায়ন কামিলার তত্বাবধানেই ওই স্কুলের সেপটিক ট্যাংকে কাজ করতে নেমেছিল প্রদীপ বর এবং সমীর দাস নামে দুই চুক্তিভিত্তিক শ্রমিক। শনিবার সকালে সেখানেই দম বন্ধ হয়ে মারা যান ওই দুইজন। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, উপযুক্ত নিরাপত্তা না দিয়ে চুক্তি ভিত্তিক শ্রমিকদের কাজ করানোর অভিযোগে ওই লেবার কন্ট্রাক্টরকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। রবিবার বারাকপুর আদালতে তোলা হবে অভিযুক্তকে।

এদিকে রবিবার সকালেই ধৃত লেবার কন্ট্রাক্টর নারায়নের ডাক্তারি পরীক্ষা করায় পুলিশ। মৃত শ্রমিকদের পরিবারের আত্মীয়রা শনিবারই অভিযুক্ত ওই লেবার কন্ট্রাক্টরের কাছ থেকে কর্মরত অবস্থায় মৃত্যুর কারনে ক্ষতিপূরণ দাবী করেছিল। দুর্ঘটনার জেরে সাময়িক ভাবে ওই বেসরকারি ইংরাজী মাধ্যম স্কুলের সংষ্কারের কাজ বন্ধ রেখেছে স্কুল কর্তৃপক্ষ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here