kolkata bengali news

Highlights

  • ভোররাত ৩.৩৫ নাগাদ মুম্বইয়ের এক বেসরকারি হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন জনপ্রিয় অভিনেতা তাপস পাল
  • পরিচালক তরুণ মজুমদারের ‘দাদার কীর্তি’ সিনেমার মাধ্যমে রূপোলি পর্দায় ডেবিউ করেন তাপস পাল
  • মৃত্যুকালে তাপস পালের বয়স হয়েছিল ৬১ বছর

মহানগর ওয়েবডেস্ক: বাংলা সিনেমার একটি যুগের অবসান। এদিন ভোররাত ৩.৩৫ নাগাদ মুম্বইয়ের এক বেসরকারি হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন জনপ্রিয় অভিনেতা তাপস পাল। দীর্ঘদিন ধরে স্নায়ুরোগে ভুগছিলেন তিনি। বেশ কিছুদিন আগেই মুম্বইয়ের বান্দ্রা হাসপাতালে ভর্তি হন তাপস পাল। দু’দিন আগেই শারীরিক অবস্থার অবনতি হওয়ায় গত সোমবার আইসিইউ থেকে ভেন্টিলেশনে স্থানান্তরিত করা হয়। অবশেষে শেষ রক্ষা হয়নি, চিকিৎসকদের শত চেষ্টাতেও এদিন ভোরবেলা হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে প্রয়াত হয়েছেন তাপস পাল।

পরিচালক তরুণ মজুমদারের ‘দাদার কীর্তি’ সিনেমার মাধ্যমে রূপোলি পর্দায় ডেবিউ করেন তাপস পাল। ১৯৮০ সালে বাংলা সিনেমাতে অভিনয় শুরু তাপস পালের। ‘দাদার কীর্তি’র সাফল্যের পর একে একে ‘সাহেব’ (১৯৮১), ‘পার্বত প্রিয়া’ (১৯৮৪), ‘ভালোবাসা ভালোবাসা’ (১৯৮৫), ‘অনুরাগের ছোঁয়া’ (১৯৮৬), ‘অর্পন’ (১৯৮৭), ‘সুরের সাথী’ (১৯৮৮)’, ‘সুরের আকাশে’ (১৯৮৮), ‘নয়নমণি’ (১৯৮৯), ‘চোখের আলোয়’ (১৯৮৯), ‘শুভকামনা’ (১৯৯১), ‘গুরুদক্ষীণা’, ‘মায়াবিনী’ (১৯৯২), ‘তবু মনে রেখো’ (১৯৯৪)-এর মতো বেশকিছু সিনেমাতে অভিনয় করতে দেখা গিয়েছিল তাপস পালকে। শুধুমাত্র বাংলা সিনেমা নয় বলিউডেও একটি সিনেমাতে অভিনয় করতে দেখা গিয়েছিল তাপস পালকে। মাধুরী দীক্ষিতের বিপরীতে হিরেন নাগের ‘অবোধ’ সিনেমাতে অভিনয় করতে দেখা গিয়েছিল তাপস পালকে। এছাড়াও ২০০০ সালে বুদ্ধদেব দাশগুপ্তের ‘উত্তরা’ ও ‘মন্দ মেয়ের উপাখ্যান’ সিনেমাতেও অভিনয় করতে দেখা গিয়েছে তাপস পালকে।

শুধুমাত্র রূপোলি পর্দা নয় রাজনৈতিক ময়দানেও হাতেখড়ি করেছিলেন তাপস পাল। বিধানসভা নির্বাচন কিংবা লোকসভাতে ভোটে জিততেও দেখা যায় অভিনেতাকে। ২০০৯ ও ২০১৪ সালে কৃষ্ণনগর লোকসভা কেন্দ্র থেকে তৃণমূল কংগ্রেসের টিকিটে ভোটে জিতে সাংসদ হন তাপস পাল। এদিকে রোজভ্যালি কাণ্ডে গত ২০১৬ সালে সিবিআইয়ের হাতে গ্রেফতার হন তাপস পাল। দীর্ঘ ১৩ মাস জেলবন্দি থাকার পর জামিনে মুক্তি পান অভিনেতা। মঙ্গলবার ভোররাত ৩.৩৫ নাগাদ অকাল প্রয়াণ হয় অভিনেতার। সূত্রের খবর, এদিন সন্ধেয় তাঁর মরদেহ কলকাতায় আনা হতে পারে বলে জানা গিয়েছে। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৬১ বছর।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here