নিজস্ব প্রতিবেদক, ব্যারাকপুর: ‘দেশের প্রধানমন্ত্রী দেশটাকে ভেঙে টুকরো টুকরো করে দিতে চাইছেন। আমাদের রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর চায়না যাওয়ার কথা ছিল। মুখ্যমন্ত্রী চায়না যাচ্ছিলেন দেশের বিদেশমন্ত্রী সুষমা স্বরাজের অনুরোধে দেশের উন্নয়নের স্বার্থে। সেখানে আমরা কি দেখলাম একজন অঙ্গ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর বিদেশ সফরকে সেরকম গুরুত্বই দিলেন না প্রধানমন্ত্রী। আমাদের রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী চায়নাতে নিশ্চই চাউমিন খেতে যাচ্ছিলেন না। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপওা রক্ষীরাও পৌঁছে গেছিল সেখানে সবরকম নিরাপত্তা ব্যাবস্থা খতিয়ে দেখতে। কিন্তু কেন্দ্র সরকার চায়নার সঙ্গে আমাদের মুখ্যমন্ত্রীর বৈঠকের কোন ব্যাবস্থাই করতে পারেনি। অথচ এই মোদী যখন গুজরাটের মুখ্যমন্ত্রী ছিলেন তখন ইউপিএ সরকার মোদীকে পূর্ন মর্যাদা দিয়ে বিদেশ সফরে পাঠিয়েছিল। এই মোদী দেশের মানুষকে এত গ্যাস খাওয়াচ্ছেন যে গ্যাসের দাম বাড়তে বাধ্য।’ এভাবেই মদনবাণে রবিবার বিদ্ধ হলেন দেশের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

রবিবার উত্তর ২৪ পরগনা জেলার ব্যারাকপুর মহকুমার পলতা এলাকার শান্তিনগর মাঠে আয়োজিত তৃণমূল কংগ্রেসের নোয়াপাড়া বিধানসভা কেন্দ্রের রাজনৈতিক কর্মশালায় যোগ দিয়ে ফেরার পথে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে দেশের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে কার্যত তুলোধোনা করলেন তৃনমূল নেতা মদন মিত্র। তিনি অমিত শাহর পুরুলিয়া সফরকে তীব্র কটাক্ষ ক%B