প্রতীকী ছবি

মহানগর ডেস্ক: করোনার দ্বিতীয় ঢেউ যেভাবে আছড়ে পড়ছে দেশ জুড়ে, তাতে প্রতিদিনই ভাঙছে রেকর্ড। গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২০২৩, যা দেশের করোনা অতিমারীর ইতিহাসে সর্বোচ্চ। দেশের বেহাল স্বাস্থ্য ব্যবস্থার কারণেই যে মৃতের সংখ্যা বাড়ছে প্রতিদিন, তা কার্যত স্পষ্ট। এমতাবস্থায় গুরুতর অভিযোগ উঠল মধ্যপ্রদেশের বিজেপি সরকারের বিরুদ্ধে। অভিযোগ, করোনা আক্রান্ত রোগীর মৃত্যু ধাপাচাপা দিতে তথ্য গোপন করছে ওই রাজ্যের সরকার।

কিভাবে সামনে এল এই অভিযোগ ? মধ্যপ্রদেশে করোনা আক্রান্ত রোগীর মৃত্যুর পরিসংখ্যানের সঙ্গে শ্মশান বা কবরস্থানের পরিসংখ্যানের গরমিল এই অভিযোগের কারণ। দেখা গিয়েছে, গত মঙ্গলবার রাজধানী ভোপালের একটি শ্মশানে সৎকারের জন্য নথিভুক্ত হয়েছে ৯৪ জনের নাম। কিন্তু সরকারি হিসাব অনুযায়ী ওই রাজ্যে মারা গিয়েছে মাত্র ৩ জন। এখান থেকেই উঠতে শুরু করেছে প্রশ্ন। তবে ঠিক কি কারণে তথ্য গোপন করছে মধ্যপ্রদেশ সরকার, সেই বিষয়ে এখনো কোনও স্পষ্ট জবাব পাওয়া যায়নি সরকারের তরফে। অন্যদিকে মধ্যপ্রদেশের শ্মশান এবং কবরস্থানের ছবি কার্যত শিউরে ওঠার মতো। শেষকৃত্য করার জায়গা টুকুও পাওয়া যাচ্ছে না সেখানে। মৃতদেহের লম্বা লাইন শ্মশানের বাইরে।

উল্লেখ্য, করোনার দ্বিতীয় সংক্রমণে মধ্যপ্রদেশে এখনও পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ৪ লক্ষ ৩৩ হাজার ৭০৪ জন। যেখানে শুধু মঙ্গলবার আক্রান্তের সংখ্যা ১২,৭২৭ জন। সরকারি তথ্য অনুসারে করোনার ছোবলে প্রাণ গিয়েছে এখনও পর্যন্ত ৪,৭১৩ জনের।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here