মহানগর ওয়েবডেস্ক: করোনাকালে নিউ নরম্যালের সময় কীভাবে দুর্গাপুজো অনুষ্ঠিত হবে তা নিয়ে ঘোষণা করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিন নেতাজি ইন্ডোরে একটি সভা করে পুজো উদ্যোক্ততাদের উপস্থিতিতে একাধিক নতুন নিময় নীতির কথা জানান তিনি। একই সঙ্গে পুজোর আগে ঝাঁপিও খোলেন।

মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, এবারের পুজোয় ফায়ার ব্রিগেড ও পুরনিগম কোনও ট্যাক্স নেবে না। সিইএসসি ও রাজ্য বিদ্যুৎ দপ্তর ৫০ শতাংশ কম দরে বিনামূল্যেই বিদ্যুৎ সাপ্লাই করবেন বলে জানান তিনি। এছাড়াও পুজো কমিটিগুলিকে রাজ্য সরকার এবার ৫০ হাজার টাকা করে দেবেন বলে জানিয়েছেন। গতকাল এই অনুদান ছিল ১০ হাজার টাকার। একধাক্কায় বাড়িয়ে এবার সেটা ৫০ হাজার করা হয়েছে। এবারের পুজোর অনুমতি নিতে হবে অনলাইনে।

এখানেই শেষ নয়, সিভিক ভল্যান্টিয়ার ও আশাকর্মীদের বেতন ১০০০ টাকা করে বাড়ানোর কথাও জানান তিনি। পুজোর আগে নিঃসন্দেহে যা এক সুখবর। এছাড়াও পুজোর সময় হকারদের ২০০০ টাকা করে সরকার সাহায্য করবেন বলে তিনি জানান। অঙ্গনওয়াড়ি মেয়েরা অবসরের পর তিন লাখ টাকা করে পাবে। ঘোষণা করেন মুখ্যমন্ত্রী।

যারা রাতে পুজোয় ঠাকুর দেখতে ভালোবাসেন তাদের জন্য তৃতীয়া থেকে একাদশী পর্যন্ত রাতে ঠাকুর দেখায় ছাড় দেওয়া হচ্ছে বলে মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন। তবে পুজো কার্নিভাল বাতিল বলে ঘোষণা করেছেন মমতা। তবে পরের বছর দ্বিগুণ উৎসাহে পুজো হবে বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। মুখ্যমন্ত্রী বলেন এই পরিস্থিতিতে পুজো সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করা রাজ্যের সামনে একটা বড় চ্যালেঞ্জ। সংক্রমণের সম্ভাবনা যথাসম্ভব কম করে যাতে মানুষ পুজোর আনন্দ করতে পারেন তার দায়িত্ব প্রশাসনের পাশাপাশি পুজো কমিটি গুলিকে নিতে হবে বলে মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here