mamata

 নিজস্ব প্রতিনিধি :   বাংলা বছরের দ্বিতীয় দিনেই জোর কদমে প্রচার শুরু হয়ে গিয়েছে। নবদ্বীপ বিধানসভা কেন্দ্রে জনসভা করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বক্তব্যে তিনি উন্নয়নের খতিয়ান তুলে ধরেন। এতদিন বিভিন্ন নির্বাচনী প্রচারে শুধু বিজেপিকে আক্রমণ করতেন। নবদ্বীপ বিধানসভা কেন্দ্রের নির্বাচনী প্রচারে তিনি বিজেপির পাশাপাশি সিপিএমকেও আক্রমণ করেন। তিনি বলেন, ৩৪ বছর ক্ষমতায় থাকার পরেও সিপিএম সরকার যা কাজ করেছে, তৃণমূল সরকার ছয়-সাত বছরে তার থেকে বেশি কাজ করেছে।

উন্নয়নের খতিয়ান দেন তিনি। তিনি বলেন, রাজ্য শিক্ষা, খাদ্য, চিকিৎসা পরিষেবা বাংলায় বিনামূল্যে দেওয়া হচ্ছে। তিনি রাজ্যের পাশাপাশি স্থানীয় উন্নয়নের প্রসঙ্গ তুলে ধরেন। তবে ভাষণ দিতে গিয়ে আগাগোড়া সতর্ক ছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। কড়া ভাষায় বিজেপিকে আক্রমণ করে তিনি বলেন, বিজেপি এলেই এনআরসি করবে। মানুষকে ডিটেনশন ক্যাম্পে পাঠাবেন। অসমে ক্ষমতায় আসার পরেই ডিটেনশন ক্যাম্পে ১৪ লক্ষ হিন্দুকে পাঠিয়েছে। তিনি পরোক্ষে বলেন, হিন্দু মানেই ডিটেনশন ক্যাম্পে যেতে হবে না, ভাবলে ভুল হবে। তিনি অভিযোগ করেন, ভোটারদের প্রভাবিত করতে বিজেপি কোথাও কোথাও টাকা বিলি করছেন। তিনি বলেন,  আপনারা বিজেপিকে বলুন ক্যাশ নয়, বিনা পয়সায় গ্যাস দিন।

এই নির্বাচনী সভায় জায়গা করে নিয়েছে করোনা মহামারী। যদিও রাজ্যে করোনা সংক্রমণ বাড়ার জন্য বিজেপি দায়ী করেন তিনি। তিনি বলেন, মোদির সভার জন্য রাজ্যের বাইরে থেকে লোক আসেন প্যাণ্ডেল করতে। তাঁদের থেকে করোনা ছাড়াচ্ছে। তিনি বলেন, মোদি জনসভা করতেই পারেন। কিন্তু রাজ্যের মানুষ প্যাণ্ডেল তৈরি করুক। তিনি আরও বলেন, যখন দেশে করোনা সংক্রমণ কমে গিয়েছিল, তখন দ্রুত গতিতে টিকাকরণ করা প্রয়োজন ছিল। তাহলে দেশে করোনা সংক্রমণ হয়তো কিছুটা নিয়ন্ত্রণে থাকত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here