mamata modi

নিজস্ব প্রতিনিধি: রাজ্য করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে। এই পরিস্থিতিতে  পর্যাপ্ত পরিমাণ টিকা, জরুরি ওষুধ ও অক্সিজেনের যোগান নিশ্চিত করার অনুরোধ জানিয়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় চিঠি লিখলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে।

সার্বিক টিকাকরণের উদ্দেশে রাজ্য সরকার কেন্দ্রের কাছে নিজের খরচে প্রয়োজনীয় টিকা সরাসরি কেনার ছাড়পত্র চেয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী। তা এখনও পাওয়া যায়নি বলে মুখ্যমন্ত্রী চিঠিতে জানিয়েছেন। মুখ্যমন্ত্রী অভিযোগ করেন, রাজ্য গোটা দেশের মধ্যে যথেষ্ট কৃতিত্বের সঙ্গে টিকাকরণের কাজ পরিচালনা করেছে। তারপরেও কেন্দ্রীয় সরকারের তরফে অনিয়মিত যোগানের কারণে টিকাকরণ কর্মসূচি মার খাচ্ছে। বর্তমান পরিস্থিতিতে বিশেষ করে কলকাতার মত জনবহুল শহরে সংক্রমনের ঊর্ধ্বগতি আটকাতে যুদ্ধকালীন তৎপরতায় টিকাকরণের প্রয়োজনীয়তার কথা উল্লেখ করেন তিনি। পাশাপাশি রেমেডিসিভির মতো করোনা চিকিৎসার জন্য প্রয়োজনীয় ওষুধ এবং অক্সিজেনের যোগান সুনিশ্চিত করতেও তিনি প্রধানমন্ত্রীকে অনুরোধ জানান তিনি।

রাজ্যে করোনা সংক্রমণ আগের থেকেও বেশি হয়েছে। মৃত্যুর হার কিছুটা কম হলেও ক্রমেই বাড়ছে মৃত্যুর সংখ্যা। শনিবার রাজ্যে সাত হাজারের বেশি মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এই পরিস্থিতিতে করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে আনতে একগুচ্ছ নির্দেশিকা জারি করা হল রাজ্যের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফে। সেই নির্দেশিকায় জানানো হয়েছে, রাজ্যে গণপরিবহণ গুলোতে মাস্ক পরা, সামাজিক দুরত্ব বজায় রাখার মতো করোনা বিধি মেনে চলতে হবে। সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ এই বিষয়ে নজরদারি চালাবে। সরকারি , বেসরকারি সমস্ত প্রতিষ্ঠানে সপ্তাহে একদিন সম্পূর্ণ স্যানেটাইজেশনের প্রক্রিয়া চালাতে হবে। সমস্ত দোকান, শিল্প ও বাণিজ্য ক্ষেত্রগুলোতে একসঙ্গে কর্মীরা যাতে কাজ না করেন, সেই জন্য সমস্ত কর্মীদের সময়সীমা ভাগ করে দিতে হবে। রাজ্য সরকার অধীনস্থ অফিসগুলোতে ৫০ শতাংশ কর্মীদের নিয়ে কাজ করতে হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here