নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা: খরচ কমাতে ১৭ জোড়া ট্রেন বাতিল হতে পারে হাওড়া-শিয়ালদা ডিভিশনে। লকডাউনের জেরে বন্ধ যাত্রীবাহী ট্রেন পরিষেবা। ফলে টিকিট বিক্রি করে যে আয় রেলের হয় তা এখন আপাতত বন্ধ। জানা যাচ্ছে, তাই খরচে হ্রাস টানতে বেশ কিছু ট্রেন পুরোপুরি বাতিল করতে চলেছে রেল মন্ত্রক। দেশজুড়ে প্রায় তিন হাজার ট্রেন বাতিল করতে পারে রেল কর্তৃপক্ষ। এর মধ্যে হাওড়া ও শিয়ালদা ডিভিশনের ১৭ জোড়া ট্রেন রয়েছে। এমনটাই জানা যাচ্ছে রেল সূত্রে।

বর্তমানে মাত্র দুশোর কিছু বেশি স্পেশাল ট্রেন ও পরিযায়ীদের জন্য শ্রমিক স্পেশাল ট্রেন চালাচ্ছে রেল। যদিও শ্রমিক স্পেশাল ট্রেনের সংখ্যা এখন অনেকটাই কম। এরমধ্যে রেলমন্ত্রক সূত্রে জানা যাচ্ছে, আগস্টের মাঝামাঝি পর্যন্ত ট্রেনের পরিষেবা বাড়ানো হবে না। শুধুমাত্র স্পেশাল ট্রেনগুলিই চালানো হবে। ফলে যাত্রীভাড়া থেকে রেলের আয় কমেছে অনেকটাই। এই পরিস্থিতিতে করোনা পরবর্তী সময়ে রেলের খরচে রাশ টানতে চাইছে মন্ত্রক।

এরমধ্যে চুক্তিভিত্তিক কর্মী সঙ্কোচন, বাড়তি কর্মীদের স্বেচ্ছাবসরে পাঠানোর মতো সিদ্ধান্ত আগেই নিয়েছিল রেল। সূত্রের খবর, এবার দেশজুড়ে প্রায় ৩,০০০ ট্রেন পাকাপাকি বাতিলের সিদ্ধান্ত নিল রেলবোর্ড। সম্প্রতি রেলবোর্ড থেকে বিভিন্ন রেল জোনগুলির কাছে মূলত ধীরগতির ও আয়ের দিক থেকে লাভজনক নয় এমন ট্রেনগুলির তালিকা চাওয়া হয়েছে। যেগুলির অতিরিক্ত স্টপেজ থাকায় রেলের আয়ের থেকে ব্যায় বেশি হয়।

পূর্ব রেল সূত্রে খবর, হাওড়া ও শিয়ালদা ডিভিশনে এরকম ১৭ জোড়া ট্রেনের তালিকা তৈরি করে ইতিমধ্যেই পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। যার মধ্যে রয়েছে ১০ জোড়া মেল-এক্সপ্রেস ট্রেন ও ৭ জোড়া প্যাসেঞ্জার ট্রেন। এই তালিকা রেলের অপারেশন ও কমার্শিয়াল বিভাগের অনুমোদন নিয়েই তৈরি করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here