মঙ্গল রয়েছে পৃথিবীতেই, লাল গ্রহের হাওয়া খেতে ৩ দিনের খরচ মাত্র ৪.৮০ লাখ

0
369

মহানগর ওয়েবডেস্ক: পৃথিবীর হাল খারাপ। তাই আগামী দিনে বেঁচে থাকার জন্য বিজ্ঞানীদের মাথায় ঘুরছে ভিনগ্রহে বাসস্থানের পরিকল্পনা। আর ভিনগ্রহের সেই তালিকায় সবার প্রথমে রয়েছে পৃথিবীর সবচেয়ে কাছের লালগ্রহ মঙ্গল। তবে স্থায়ী বাসিন্দা হওয়ার পরিবর্তে আপাতত ছুটির দিনে সেখানে ঘুরতে যাওয়ারই পরিকল্পনা রয়েছে পৃথিবীবাসীর। নীল গ্রহ থেকে একেবারে ৫৪.৬ মিলিয়ন কিলোমিটার দূরে অবস্থিত এই মঙ্গল নিয়ে মানুষের আগ্রহও কম নয়। হয়ত তার জেরেই এবার মহাকাশের লম্বা দুরত্ব ছাড়িয়ে পৃথিবীর অভ্যন্তরেই এসে গেল মঙ্গলের ছোঁয়া। হ্যাঁ। মহাকাশচারীদের মতো ওই ভারী মোটা মোটা জামাকাপড় নয়, শব্দের চেয়ে দ্রুত গতিতে উড়ে যাওয়া রকেটের ভয়ঙ্কর জি ফোর্সের ঝক্কি নেই। এক্কেবারে ঝাড়া হাত পায়ে যান। দিন তিনেক থাকুন। আর বেরিয়ে এসে পাড়া পড়শিকে শোনান নিজের রোমাঞ্চকর অভিজ্ঞতার কথা। সহজে যাকে বলে অফিস থেকে ছুটি নিয়ে ছোট্ট একটা ট্যুর। পৃথিবীবাসীর জন্য মঙ্গলের স্বাদ নিতে এমনই সুযোগ এনে দিল এক বেসরকারি সংস্থা।

সংবাদ মাধ্যম সূত্রের খবর, একেবারে মঙ্গল গ্রহের আবহাওয়া ও সেখানকার প্রাকৃতিক পরিবেশের ধাঁচেই উত্তর স্পেনে তৈরি করা হয়েছে এক কৃত্রিম গুহা। যার অভ্যন্তরে একবার ঢুকে গেলে কোনওভাবে বোঝার উপায় নেই আপনি এই পৃথিবীতে রয়েছেন। তবে এর জন্য গ্যাঁটের কড়িও বেশ খানিক খসাতে হবে আপনাকে। কিন্তু সেটাও খুব একটা বেশি নয় ৩টে দিন ও রাতের জন্য খরচ মাত্র ৪ লক্ষ ৮০ হাজার টাকা। মঙ্গলে যেতে যেখানে কোটি কোটি টাকা খরচ করতে রাজি বিশ্বের ক্রোড়পতি মহল সেখানে মাত্র ৪.৮০ লক্ষ টাকাটা নস্যিই বলা যায়।

জানা গিয়েছে স্পেনের কৃত্রিম এই মঙ্গল গুহার উচ্চতা ১৯৬ ফুট এবং দৈঘ্য ১.৪ কিলোমিটার। কর্তৃপক্ষের দাবি, এই ভিতরে ঢুকলে পুরোপুরি মঙ্গল গ্রহের অনুভুতি পাবেন পর্যটকরা। পৃথিবীর মধ্যেই সদ্য তৈরি হওয়া এই লালগ্রহ ইতিমধ্যেই খুলে দেওয়া হয়েছে পর্যটকদের জন্য। তবে এখানে ঢুকতে পারাটা জলভাতের মতো অতটাও সহজ কিন্তু নয়। কোনও পর্যটক যদি এখানে যেতে চান সেক্ষেত্রে টাকা জমা দেওয়ার পর ৩০ দিনের প্রশিক্ষণ নিতে হবে তাঁকে। যার মধ্যে তিন সপ্তাহ হবে অনলাইন ট্রেনিং। এরপরের এক সপ্তাহ হবে শারীরিক ও মানসিক পরীক্ষা তাতে পাশ করলেই মিলে যাবে মঙ্গল গুহায় প্রবেশের অনুমতি। কর্তৃপক্ষের দাবি কৃত্রিম হলেও একবার যে এই মঙ্গলে প্রবেশ করবে সারা জীবনের জন্য খোদাই হয়ে থাকবে অ্যাডভেঞ্চারে ভরা এই মঙ্গল সফর।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here