news national

মহানগর ডেস্ক: সারাদেশে করোনা সংক্রমণ অনেকটাই নিম্নগামী। ভারতে দৈনিক ১০ থেকে ১২ হাজারের মধ্যে করোনায় আক্রান্ত হচ্ছেন। মৃতের সংখ্যাও দুই অঙ্কের ঘরে। কিন্তু এই পরিস্থিতিতেও মুম্বই বা মহারাষ্ট্রের অবস্থা মোটেই সুবিধের নয়। মুম্বইয়ে করোনা সংক্রমণের হার কমলেও দেশের অন্যান্য অংশের তুলনায় উল্লেখযোগ্যভাবে কমেনি। তাই মুম্বইয়ে আবার লকডাউনের সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে বলে মেয়র কিশোরী পাণ্ডেকর বলেছেন। ইঙ্গিত দিয়েছে মহারাষ্ট্র সরকারও।

মুম্বইয়ের মেয়র কিশোরী পাণ্ডেকর বলেছেন, ট্রেনের বেশিরভাগ যাত্রীরা মুখে মাস্ক পরছেন না। জনগণকে করোনা বিধি মেনে চলতে হবে, সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে। নাহলে মুম্বইয়ে আবার লকডাউন চালু করতে হবে তিনি শহরবাসীকে সতর্ক করেছেন। সম্প্রতি মহারাষ্ট্র সরকারও এই বিষয়ে রাজ্যবাসীকে সতর্ক করেছে। মহারাষ্ট্র সরকার বলেছে, রাজ্যে করোনা পরিস্থিতি ভালো নয়। এখনও করোনা বিধি মেনে চলতে হবে। মানুষকে আরও বেশি সতর্ক থাকতে হবে। যদি মানুষ করোনা বিধি মেনে না চলেন, সেক্ষেত্রে কোনও কঠিন সিদ্ধান্ত নেওয়া হতে পারে বলেও মহারাষ্ট্র সরকারের তরফে জানানো হয়। সেই কঠিন সিদ্ধান্ত যে লকডাউনের ইঙ্গিত, তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না।

মুম্বইয়ের উপমুখ্যমন্ত্রী অজিত পাওয়ার সরাসরি লকডাউনের কথা বলেন। তিনি জানান, যে কোনও মুহূর্তে কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে হতে পারে মহারাষ্ট্র সরকারকে। তিনি সাধারণ মানুষকে এর জন্য প্রস্তুত থাকতে বলেন। মহারাষ্ট্রে যে হারে করোনা সংক্রমণ বাড়ছে, এখুনি সিদ্ধান্ত নিতে হবে। না হলে এর অনেক বড় মাশুল চোকাতে হতে পারে বলেও অজিত পাওয়ার মনে করছেন। তিনি বলেছেন, লকডাউন ঘোষণা করা হতে পারে রাজ্যে। বিশ্বের বিভিন্ন অংশে এখনও লকডাউন চলছে। দেশে করোনা মহামারীর দ্বিতীয় ঢেউ আসতে পারে। তার আগে সকলের সতর্ক থাকা দরকার।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here