ডেস্ক: বিবাহ-বিচ্ছেদের জন্য আবেদন করেছিলেন আগেই, এবার নতুন করে স্ত্রী রত্না চট্টোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে পর্ণশ্রী থানায় অভিযোগ দায়ের করলেন মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়। মেয়র তাঁর স্ত্রী’র বিরুদ্ধে অভিযোগ এনেছেন যে, রত্নাদেবী অসৎ উদ্দেশ্য নিয়ে তাঁর বাড়িতে ঢুকেছিলেন।

ব্যক্তিগত জীবনের ঘটনা প্রকাশ্যে আসায় শোভনের উপর নিজের ক্ষোভ আগেই উগড়ে দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। দীর্ঘদিন ধরেই স্ত্রী’র সঙ্গে একঘরে সংসার করেন না শোভনবাবু। তারপরই বিভিন্ন কারণে সম্পর্কে ছেদ টানার সিদ্ধান্ত নেন তাঁরা। এবার শোভন পর্ণশ্রী থানায় অভিযোগ জানিয়ে বলেন, রত্না ও ঝুমা সাহা নামের জনৈক বান্ধবী চলতি মাসের ১৯ ও ২৪ তারিখ তাঁর বাড়িতে অসৎ উদ্দেশ্য নিয়ে জোর করে ঢুকে পড়েন। এই কারণে গত ১৯ ফেব্রুয়ারি থানায় অভিযোগ দায়ের করেন শোভন। এরপর একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি হওয়ায় ফের অভিযোগ করেন শোভন। পুলিশের নিষ্ক্রিয়তার অভিযোগ তুলে মেয়র জানতে চান, অভিযোগের পরও কেন উপযুক্ত ব্যবস্থা নেয়নি পুলিশ।

উল্লেখ্য, পারিবারিক হিংসার কারণ দেখিয়ে স্ত্রী রত্না চট্টোপাধ্যায়ের থেকে মাসকয়েক আগে ডিভোর্স চান শোভন চট্টোপাধ্যায়। পাশাপাশি রত্নাদেবীর চাহিদা পূরণ করতে না পারাকেও কারণ হিসাবে আদালতে ব্যাখ্যা করেছেন শোভন। বিবাহ বিচ্ছেদের মধ্যেই শোভন ও রত্নাকে একাধিকবার নারদা মামলায় ডেকে পাঠিয়েছে ইডি। ভবিষ্যতেও আবার এই মামালায় ডাকা হতে পারে তাদের।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here