national news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: বয়স ৫৪। কিন্তু তাঁকে দেখে একবার হলেও দীর্ঘনিঃশ্বাস ফেলে না এমন নারীর সংখ্যা হয়তো কম। মিলিন্দ সোমান নামটাই এমন যে, তাঁর খেয়ালে বুঁদ হয়ে যেতে পারেন এক নিমেষে। নাম শুনলেই ভেসে ওঠে সেই ৯০-এর সময়, ন্যুড ফোটোশ্যুটে মিলিন্দের সুঠাম চেহারা, অনবদ্য সেক্স অ্যাপিলে আলোড়ন ফেলে দেওয়া মডেল। তবে তাঁর নাম যখন রাজনৈতিক পরিসরে চলে আসে এবং যুক্ত হয় রাষ্ট্রীয় স্বয়ং সেবক সংঘ বা আরএসএস-এর সঙ্গে তখন তো ভ্রূ কোঁচকাতেই হয়। হ্যাঁ, আরএসএস করতেন মিলিন্দ সোমান, জানালেন স্বয়ং! এই তথ্য জানাতেই বিপুল হারে এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্রেন্ড হচ্ছেন তিনি।

মিলিন্দ জানিয়েছেন, মুম্বইয়ের শিবাজি পার্কে ‘শাখা’র ট্রেনিং সেন্টারে যেতেন তিনি। তখন তাঁর ১০ বছরের মতো বয়স। তাঁর কথায়, বাবার দৃঢ় বিশ্বাস ছিল নিয়মমাফিক জীবন, ব্যায়াম এবং সঠিক চিন্তা তাঁকে ভবিষ্যতের জন্য তৈরি করবে। এর জন্য আরএসএস-এর সঙ্গ দরকার ছিল। সেখানেই জুনিয়র ক্যাডার ছিলেন তিনি বলে জানিয়েছেন এই অভিনেতা। এই তথ্য জানানোর পরেই ট্যুইটার ট্রেন্ডের শীর্ষে রয়েছেন মিলিন্দ সোমান।

এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের খবর অনুযায়ী, মিলিন্দ আরও জানিয়েছেন যে, তাঁর বাবা নিজে আরএসএস-এর সঙ্গে প্রত্যক্ষভাবে যুক্ত ছিলেন এবং একজন গর্বিত হিন্দু ছিলেন। তবে তিনি বোঝেননি যে হিন্দু হওয়ায় গর্বের কী রয়েছে। একইসঙ্গে এতে কোনও সমস্যাও রয়েছে কিনা তাও তাঁর জানা নেই বলে মত মিলিন্দের।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here