বিজেপিতে যোগদান শুধুমাত্র গরিব মানুষদের সাহায্যের জন্য, এমটাই জানিয়েছেন বাংলা চলচ্চিত্র জগতের‘মহাগুরু’মিঠুন চক্রবর্তী। বিগ্রেডের মঞ্চে কৈলাশ বিজয়বর্গীয়র হাত ধরে সদ্য বিজেপিতে যোগদান করেছেন মিঠুন চক্রবর্তী। এদিন ব্রিগেড সভার সব থেকে বড় আকর্ষণ ছিলেন বাঙালীবাবু মিঠুন চক্রবর্তী।

বিজেপিতে যোগদানের পরেই তার মুখে গরিবদের যোগ্য সম্মান, তাদের জন্য লড়াই করার কথা শোনা যায় ব্রিগেডের মঞ্চ থেকে। ব্রিগেডের পরেও প্রতিক্রিয়া দিতে গিয়ে একই কথা বলেছেন মিঠুন চক্রবর্তী। তার পাশাপাশি বিজেপির হাত ধরে সোনার বাংলা করার কথাও জানিয়েছেন বাঙালিবাবু মিঠুন চক্রবর্তী। গরিবদের সম্মান জানানোর প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে নিজের সিনেমার প্রসঙ্গও টেনে এনেছেন। মিঠুন চক্রবর্তী জানিয়েছে, তার প্রত্যেকটা সিনেমা গরিবদের সম্মান, তাদের অধিকার ফিরিয়ে দেওয়ার যে লড়াই তাই সবসময় তুলে ধরেছেন। ঠিক একই ভাবে এবার তিনি মানুষের পাশে দাড়াতে চান বলে জানিয়েছেন মিঠুন চক্রবর্তী। তিনি আরও জানিয়েছেন তার ১৮ বছর বয়স থেকেই গরিবদের জন্য কাজ করার ইচ্ছে ছিল, বাংলায় এখন তিনি শুধুমাত্র বিজেপির হাত ধরে এই কাজ করতে পারবেন এবং নিজেকে সেই জন্য ধণ্য বলে মনে করছেন।

উল্লেখ্য, নিজের রাজনৈতিক জীবনে অনেকবারই দল বদল করেছেন মিঠুন চক্রবর্তী। প্রথমে তিনি চরমপন্থী রাজনিতী করতেন, সেখান থেকে বেড়িয়ে তিনি মমতা বন্দোপাধ্যায়ের হাত ধরে ২০১৪ সালের ৭ই ফেব্রুয়ারি তৃণমূলে যোগদান করেন। সেখানে তাকে সাংসদের পদ ও দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু পরে তিনি ওই পদ ছেড়ে দেন। বহুদিন তারপর রাজনীতি থেকে বিরতই ছিলেন বাঙালিবাবু মিঠুন চক্রবর্তী। ফের দিয়ে আবারও জল্পনার অবশান ঘটিয়ে এদিন কৈলাশ বিজয়বর্গীয় হাত ধরে বিজেপিতে যোগদান করলেন মিঠুন চক্রবর্ত।. এই বিষয়ে বলতে গিয়ে মিঠুন চক্রবর্তী জানিয়েছেন, তিনি দল বদল করেছেন এই নিয়ে তার কোন আক্ষেপ নেই তবে এবার পরিবর্তনের রাজনীতিতে যোগদান করেছেন এবং গরিব মানুষদের পাশে দাড়ানোর জন্যই তিনি বিজেপি-কে বেছে নিয়েছেন বলেও জানিয়েছেন।

সকাল থেকেই আজকে মিঠুন চক্রবর্তীকে দেখার জন্য তার বাড়ির সামনে ভিড় জমা হয়েছিল। প্রায় দশ মিনিট পর তিনি ওই ভি়ড় কাটিয়ে বেড়তে পেরেছিলেন। তার পাশাপাশি কাল গভীর রাত পর্যন্ত কৈলাশ বিজয়বর্গীয়র সঙ্গে বৈঠক করেছিলেন মিঠুন চক্রবর্তী। বিজয়বর্গীয় সঙ্গে বৈঠক তারপরেই বিজেপিতে যোগদান তার এই নির্বাচনে টিকিট পাওযার জল্পনাকে যেন আরও উস্কে দিয়েছে।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here