ডেস্ক: ছেলের সামনেই মা-এর শ্লীলতাহানির অভিযোগ উঠল শহরের অটোচালকের বিরুদ্ধে। অভিযুক্ত অটোচালকের নাম ইমাদ আলি খান। নেতাজিনগর থানায় গতকাল রাতে এই নিয়ে অভিযোগ দায়ের করেন এক মহিলা। প্রৌঢ়ার অভিযোগের ভিত্তিকে ইতিমধ্যেই অভিযুক্ত অটোচালককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতারির প্রতিবাদে আজ সকাল থেকে গড়িয়া-টালিগঞ্জ রুটে অটো চলাচল বন্ধ রেখেছে ইউনিয়ন।

অভিযোগকারিণীর বয়ান অনুযায়ী পুলিশ জানিয়েছে, গতকাল সন্ধ্যে ৭টা নাগাদ নিজের চাকুরিজীবী ছেলেকে সঙ্গে নিয়ে বাঁশদ্রোণী থেকে গড়িয়া যাওয়ার অটোতে উঠেছিলেন বছর পঞ্চান্নর উষাদেবী। মহিলার পায়ে কিছু সমস্যা ছিল সেই কারণে অটোর বাঁ’দিকে সামনের সিটে বসেছিলেন তিনি। কিন্তু চালক ক্রমশ মহিলার দিকে সরে আসেন এবং চলন্ত অটোর মধ্যেই ওই মহিলার শ্লীলতাহানি করেন বলে পুলিশকে অভিযোগ জানিয়েছেন তাঁরা। অভিযোগকারিণী পুলিশকে আরও জানিয়েছেন, চালক নাকি বাঁ কুনুই দিয়ে লাগাতার ওই মহিলার শরীরের বিভিন্ন অঙ্গে ধাক্কা মারছিলেন। শেষ পর্যন্ত বাধ্য হয় ওই মহিলা চিৎকার করে অটো থামান। এরপরই নেতাজি নগর থানায় অভিযোগ দায়ের করলে অভিযুক্ত চালককে গ্রেফতার করে পুলিশ।

কিন্তু অভিযোগ দায়ের করার পর থেকে কয়েকজন যুবক তাদের ক্রমাগত মামলা তুলে নেওয়ার হুমকি দিচ্ছেন বলে জানিয়েছেন ওই মহিলা। এমনকি বাড়ি ফেরার সময়ও বেশ কিছু অপরিচিত যুবক রাস্তা আটকে দাঁড়ায় বলে অভিযোগ উঠেছে। এরপর পুলিশের সাহায্য নিয়ে তাঁরা বাড়ি ফিরে আসেন।

অন্যদিকে, অভিযুক্ত অটোচালককে ইতিমধ্যেই নির্দোষ সার্টিফিকেট দিয়ে দিয়েছে অটোচালকদের ইউনিয়ন। তদন্তের আগেই তাদের দাবি, ওই চালক এমন কাজ করতেই পারেন না। আপাতত অটোচালকের মুক্তির দাবিতে সকাল থেকেই টালিগঞ্জ-গড়িয়া রুটে অটো চলাচল বন্ধ রেখে বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন চালকেরা। একই সঙ্গে বিপাকে পড়েছেন নিত্যযাত্রীরা।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here