CORONA

মহানগর ডেস্ক:  দেশে দৈনিক করোনা সংক্রমণ দেড় লক্ষ ছাড়িয়ে গেল। দেশে করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ থেকে ভয়াবহতর আকার ধারণ করেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ১,৫৩,৮৭৯ জন। ক্রমেই বাড়ছে মৃত্যুর সংখ্যা। দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত্যু হয়েছে ৮৩৯ জন। দেশে মোট করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ১.৩৩ কোটি ছাড়িয়ে গেল।

পাঁচ দিন পর পর দেশে দৈনিক করোনা সংক্রমণ এক লক্ষ ছাড়াল। দেশে মোট অ্যাকটিভ করোনা রোগীর সংখ্যা ১১,০৮,০৮৭ জন। করোনাকালে করোনা অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা এটাই সর্বাধিক। মোট সংক্রমণের ৮.২৯ শতাংশ অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা। দেশে করোনা থেকে সুস্থ হওয়ার হার অনেকটাই কমে গিয়েছে। ৯০.৪৪ শতাংশ করোনা থেকে সুস্থতার হার বলে জানা গিয়েছে। দেশে করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণের জন্য বিভিন্ন রাজ্যে নাইট কারফিউ চালু করা হয়েছে। কোথাও কোথাও লকডাইন ঘোষণা করা হয়েছে।

দেশে করোনায় সব থেকে ভয়াবহ অবস্থা মহারাষ্ট্রে। দৈনিক মোট অ্যাকটিভ রোগীর ৫১.২৩ শতাংশ মহারাষ্ট্রের বলে জানা গিয়েছে। উদ্ধব ঠাকরে রাজ্য জুড়ে টানা লকডাউনের ইঙ্গিত দিয়েছে। রাজ্যে করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে শনিবার তিনি সর্বদলীয় বৈঠক করেছেন বলে জানা গিয়েছে। করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে আনতে শনিবার দিল্লি সরকার নতুন করে বিধি নিষেধ জারি করেছে। সমস্ত ধরনের জমায়েত নিষিদ্ধ করেছে কেজরিওয়াল সরকার। পাশাপাশি রেস্তোরাঁ, থিয়েটার, বিয়ের মতো অনুষ্ঠানে বেশ কিছু নিয়ম লাঘু করেছে। প্রতিবেশী উত্তরপ্রদেশ সরকারও বেশ কিছু নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। নবরাত্রি ও রমজান উপলক্ষে পাঁচ জনের বেশি জমায়েতের ওপর নিষেধাজ্ঞ জারি করেছে।  

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here