Home Featured ‘যেখানে খুশি যাক না!’, শুভেন্দুর হুঁশিয়ারিকে পাত্তাই দিচ্ছেন না মুকুল!

‘যেখানে খুশি যাক না!’, শুভেন্দুর হুঁশিয়ারিকে পাত্তাই দিচ্ছেন না মুকুল!

0
‘যেখানে খুশি যাক না!’, শুভেন্দুর হুঁশিয়ারিকে পাত্তাই দিচ্ছেন না মুকুল!
Parul

মহানগর ডেস্ক: পিএসি’র চেয়ারম্যান হিসেবে মুকুল রায়কে মেনে নিতে পারছে না বিজেপি। প্রবল বিরোধিতার পথ বেছে নিয়েছেন গেরুয়া শিবিরের বিধায়কেরা। দলত্যাগ বিরোধী আইন প্রণয়ন করে মুকুল রায়কে শায়েস্তা করার কথা বলেছেন শুভেন্দু অধিকারী।  এ ব্যাপারে নিজে কী বলছেন মুকুল?

মুকুল রায়ের বিধায়ক পদ খারিজের জন্য যারপরনাই চেষ্টা চালাচ্ছেন বিরোধী দলনেতা। শুক্রবার স্পিকারের ঘরে ছিল শুনানি। পরবর্তী শুনানি ৩০ জুলাই। শুভেন্দু জোর গলায় বলেছেন, ‘অনির্দিষ্টকাল ধরে শুনানি চলবে এটা হয় না’। এ ব্যাপারে কৃষ্ণনগর উত্তরের বিধায়ক যেন হিমশীতল। চাণক্যর মতোই অবিচল! ‘যেখানে খুশি যাক না! যেতেই পারে আদালতে।’

অন্যদিকে বিজেপির ৮ বিধায়ক ইস্তফা দেওয়ায় সেই জায়গা ভরাট করা হল এদিন৷ অধ্যক্ষ বিমান বিমান বন্দ্যোপাধ্যায় সেই কাজটি সম্পন্ন করেছেন। সভাকক্ষে পদ পেয়েছেনমদন মিত্র, প্রাক্তন আইপিএস হুমায়ুন কবীর। দু’জনকে দু’টি কমিটির চেয়ারম্যান করা হয়েছে। স্ট্যান্ডিং কমিটির এই রদবদলের জেরে বিধানসভার ৪১ টি কমিটির মধ্যে ৪০ টি কমিটির চেয়ারম্যানই হলেন তৃণমূলের বিধায়কেরা। অবশিষ্ট মাত্র একটি কমিটি, অর্থাৎ বিধায়ক উন্নয়ন তহবিল কমিটির চেয়ারম্যান পদপ্রাপ্তি হয়েছে আইএসএফ বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকি। 

সূত্র উদ্ধৃত করে সংবাদমাধ্যমে দাবি করা হয়েছে, লেবার কমিটিতে মনোজ টিগ্গার জায়গাটি দেওয়া হয়েছে কামারহাটির মদনকে। ডেবরার হুমায়ুন এসেছেন আনন্দময় বমর্ণের জায়গায়৷ এছাড়াও বিধানসভায় জায়গা পেলেন সুদীপ্ত রায়, পান্নালাল হালদার, আব্দুল খালেক মোল্লা, রুকবানুর রহমান, অশোক চট্টোপাধ্যায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here