ডেস্ক: সোমবার ছিল নব নিযুক্ত বিশেষ পুলিশ পর্যবেক্ষক বিবেক দুবের সঙ্গে সর্বদলীয় বৈঠক। আর সেই বৈঠকে যোগ দিতে পৌঁছে রীতিমতো বিস্ফোরণ ঘটালেন বিজেপি নেতা মুকুল রায়। শাসকদল তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে একগুচ্ছ অভিযোগের পাশাপাশি মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক (সিইও) আরিজ আফতাব তৃণমূল কংগ্রেসের লোক বলে তোপ দাগেন মুকুল।

তাঁর অভিযোগ, মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক আদতে তৃণমূলের হয়ে কাজ করছেন। এহেন অভিযোগ তুলে আফতাবের সামনে পুলিশ পর্যবেক্ষকের সঙ্গে বৈঠক করতেও অস্বীকার করেন মুকুল রায়। ফলে, বৈঠক ছেড়ে বেরিয়ে যান আফতাব। শেষ পর্যন্ত তাঁর অনুপস্থিতিতেই বিবেক দুবের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে মুকুলের নেতৃত্বাধীন বিজেপির প্রতিনিধি দল।

বৈঠক শেষে বেরিয়ে মুকুল জানান, সব জায়গায় এখনও মোতায়েন নেই কেন্দ্রীয় বাহিনী। হচ্ছে না রুটমার্চও। কেন্দ্রীয় বাহিনীর পোষাকে দেখা যাচ্ছে পুলিশকে। বিবেক দুবে মুকুলের তোলা অভিযোগ খারিজ করে দিলেও রাজ্যের বিভিন্ন এলাকায় নিরাপত্তার ওপর জোর দেওয়ার কথা বলেছেন। দুবে জানান, অন্য রাজ্যে এক দফায় ভোট হচ্ছে৷ এখানে ৭ দফায় হচ্ছে৷ নিশ্চয়ই এই রাজ্যকে সমস্যাবহুল রাজ্য মনে করছে কমিশন৷ প্রসঙ্গত, রাজ্যে পৌঁছেই বিবেক দুবে জানিয়েছিলেন, পুলিশকে নিজের দায়িত্ব মনে করিয়ে দিতে এবং ভোটারদের আত্মবিশ্বাস বাড়াতে রাজ্যে এসেছেন তিনি। তবে রাজ্যের মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক আফতাবের শাসকদলের হয়ে তাঁবেদারির করার অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন কেন্দ্রের বিশেষ পর্যবেক্ষক।

এদিন বিবেক দুবের সঙ্গে আলোচনা করতে উপস্থিত হয়েছিলেন তৃণমূল সহ অন্যান্য বিরোধী দলের প্রতিনিধিরাও। সাক্ষাৎ শেষে তৃণমূলের প্রতিনিধি তাপস রায় বলেন, বিরোধীরা রাজ্যের আইনশৃঙ্খলার পরিস্থিতি যতটা খারাপ বলে দাবি করছে আসলে ততটা নয়। আর কোনও ইস্যু না থাকার কারণেই এহেন অভিযোগ তোলা হচ্ছে বলেও দাবি করেন তিনি। রাজনীতিতে টিকে থাকার স্বার্থে বিজেপি গুজব রটাচ্ছে বলেও দাবি করেন তিনি।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here