ডেস্ক: গুজরাত বিধানসভা নির্বাচনে জয়লাভের পর পুরসভা নির্বাচনেও জয়ের ধারা অব্যাহত রাখল বিজেপি। কিন্তু বিধানসভা নির্বাচনের মতোই এবারের আসন খোয়াতে হল বিজেপিকে। একই সঙ্গে রাহুল গান্ধির কংগ্রেসের উত্থানও স্পষ্ট হয়ে উঠল।

গুজরাতের ৭৫টি পুরসভা আসনের মধ্যে ৪৪টি আসনে জয়লাভ করেছে বিজেপি। অন্যদিকে বিজেপির সঙ্গে হাড্ডাহাড্ডি লড়ে কংগ্রেস পেয়েছে ২৭টি আসন, এছাড়া বাকিদের সংগ্রহে আসন রয়েছে ৪টি। কিন্তু বিজেপির গড় গুজরাতে যে তাদের জনপ্রিয়তা হ্রাস পাচ্ছে তা ফের জানান দিল এই নির্বাচন। গতবারের তুলনায় ১৬টি আসন এবার কম পেয়েছে বিজেপি। ২০১৩-র পুরসভা নির্বাচনে গেরুয়া শিবিরের ঝুলিতে এসেছিল ৬০টি আসন। ফলে নির্বাচনে বিজেপি জয়লাভ করলেও এই হারকে নিজেদের নৈতিক জয় বলে মনে করছে কংগ্রেস শিবির।

জাফরাবাদ পুরসভায় আগে থেকেই বিনা বিরোধিতায় জয় নিশ্চিত ছিল বিজেপির। বলসাডের ধরমপুরে বিজেপি ১৪টি ওয়ার্ডে জয়লাভ করে, অন্যদিকে একই পুরসভায় ১০টি ওয়ার্ড জিতে নেয় কংগ্রেস। অন্যদিকে, বলসাডের পারডি পুরসভায় সেয়ানে-সেয়ানে টক্কর দিয়ে বিজেপি ও কংগ্রেস উভয়েই ১৪টি করে ওয়ার্ডে জয় লাভ করেছে।

২০১৩ সালের পুরসভা নির্বাচনে কংগ্রেসের ঝুলিতে এসেছিল মাত্র ১৩টি আসন। ফলে এই নির্বাচনে ১৪টি আসনের লাভে রইল কংগ্রেস। অন্যদিকে বিজেপির হাতছাড়া হল ১৬টি আসন। গুজরাত বিধানসভা নির্বাচনেই প্রতিষ্ঠান বিরোধী যেই হাওয়া ওঠা শুরু হয়েছিল তা আরও স্পষ্ট হল পুরসভা নির্বাচনের এই ফলাফলে। বিজেপিকে ক্ষমতাচ্যুত করার মতো ক্ষমতা কংগ্রেসের এখনো না হলেও, গেরুয়া গড়ে যে ভাঙন ধরাতে সফল হয়েছে কংগ্রেস তা ফের প্রমাণিত।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here