সনিয়ার সঙ্গে বৈঠকে শরদ, আত্মবিশ্বাসী শিবসেনার দাবি, ডিসেম্বরেই হবে নয়া সরকার

0
kolkata bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: রাষ্ট্রপতি শাসন লাগু হয়ে গেলেও ডিসেম্বরের মধ্যেই মহারাষ্ট্রে ত্রিশঙ্কু সরকার গঠনের ক্ষেত্রে আশাবাদী শিবসেনা। এনসিপি প্রধান শরদ পাওয়ারের সঙ্গে কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গান্ধীর বৈঠকের আগেই এহেন দাবি করেছেন সেনা সাংসদ সঞ্জয় রাউত।

শরদ ও সনিয়ার বৈঠক হওয়ার কথা ছিল রবিবার। কিন্তু তা পিছিয়ে সোমবার হবে বলে গতকালই জানা যায়। এবার গোটা দেশের নজর আটকে রয়েছে এই হেভিওয়েট বৈঠকের ওপরই। কেননা মহারাষ্ট্রে শিবসেনার সঙ্গে কংগ্রেস ও এনসিপির সমীকরণ কী হবে, তা এই বৈঠকের ওপরই নির্ভর করছে। এই পরিস্থিতিতে সরকার গঠন নিয়ে শিবসেনাকে বেশ নিশ্চিন্ত দেখাচ্ছে। সংবাদ মাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে রাউত বলেছেন, তিন দলের জোট সরকার কীভাবে কাজ করবে তা নিয়ে ন্যূনতম অভিন্ন কর্মসূচি তারা চূড়ান্ত করে ফেলেছে। সকল পক্ষই সেই কর্মসূচি নিয়ে নিজেদের সম্মতির কথা জানিয়েছেন। শরদ পাওয়ারের পর শিবসেনাও সনিয়া গান্ধীর সঙ্গে দেখা করবে। তারপরই মন্ত্রক বণ্টন নিয়ে আলোচনা হবে।

একদা বিরোধী পক্ষ হলেও এখন কংগ্রেসকে নিয়ে কোনও সমস্যা নেই শিবসেনার। এমনটাই দাবি রাউতের। উল্টে বিজেপিকে ঠুকে তিনি বলেছেন, রাষ্ট্রপতি শাসনের অছিলায় যদি কেউ মহারাষ্ট্রে রাজ করতে চায় জনগণ কিন্তু তা ভালোভাবে নেবে না। রাউতের কথায়, ‘খুব শিগগির মহারাষ্ট্রে সরকার গঠনের কাজ সম্পূর্ণ হয়ে যাবে। ডিসেম্বর মাসের মধ্যে নতুন সরকার হচ্ছে এটা নিশ্চিত। যেহেতু তিনটি পৃথক দল তাই স্থায়ী সরকার গঠনে একটু সময় তো লাগবেন। নয়া মুখ্যমন্ত্রী শিবসেনারই হবে।’ ফের একবার সাফ করেছেন রাউত।

প্রসঙ্গত, এদিনই রাজধানী নয়াদিল্লিতে কংগ্রেস সভানেত্রী সনিয়া গান্ধীর সঙ্গে বৈঠকে বসতে চলেছেন এনসিপি প্রধান শরদ পাওয়ার। সূত্রের খবর, এই বৈঠকে কংগ্রেস নেতা আহমেদ প্যাটেল, মল্লিকার্জুন খাড়্গে এবং কে সি ভেনুগোপালও উপস্থিত থাকবেন। সনিয়া গান্ধী জোটের ক্ষেত্রে চূড়ান্ত সবুজ সংকেত দিলেই মন্ত্রক বণ্টন নিয়ে আলোচনা শুরু হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here