corona india
করোনার ভারতীয় স্ট্রেইনের সমস্যা বাড়াচ্ছে

মহানগর ডেস্ক:  দেশে করোনা পরিস্থিতির ক্রমেই অবনতি হচ্ছে। করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ আকার ধারণ করছে। দেশ জুড়ে করোনা রোগীদের অক্সিজেনের জন্য হাহাকার। ব্রিটেনের বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, করোনার এই পরিস্থিতির নেপথ্যে রয়েছে করোনার নতুন ভারতীয় স্ট্রেন। বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, নতুন এই স্ট্রেন দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে। যার জেরেই ভারতে করোনায় দৈনিক সংক্রমণ লাফিয়ে চার লক্ষ ছাড়িয়ে গিয়েছে।

ব্রিটেনের বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, অক্টোবরে প্রথম করোনায় ভারতীয় স্ট্রেনের হদিশ পাওয়া গিয়েছিল। সেই স্ট্রেনটি ছিল বি.১.৬১৭। কিন্তু করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের জন্য যে ভারতীয় স্ট্রেনকে দায়ী করী হচ্ছে, সেটি হল বি.১.৬১৭.২। আগের স্ট্রেনের থেকে এই ভারতীয় স্ট্রেনটি আরও দ্রুত সংক্রমণ ছড়াতে পারে বলে পাবলিক হেলথ ইংল্যান্ডের তরফে জানানো হয়েছে। এই বিষয়ে ব্রিটেনের বেশ কয়েকটি দৈনিক শুক্রবার একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। ভারতীয় স্ট্রেন ছাড়াও  দক্ষিণ পূর্ব ব্রিটনের কেন্টের একটি স্ট্রেন, ব্রাজিল ও দক্ষিণ আফ্রিকার স্ট্রেন পাওয়া গিয়েছিল। প্রতিটি স্ট্রেন আসল করোনা ভাইরাসের থেকে দ্রুত সংক্রমণ ছড়াতে পারে।

ব্রিটেনের বিজ্ঞানীরা দাবি করছেন, কেন্টের স্ট্রেনের জন্যই ব্রিটেনে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ আছড়ে পড়েছিল। তার সঙ্গে ভারতীয় নতুন স্ট্রেন বি.১.৬১৭.২ স্ট্রেনের মিল রয়েছে। এই বিষয়ে পাবলিক হেলথ ইংল্যান্ডের তরফে বৃহস্পতিবার রিপোর্ট প্রকাশ করা হয়েছে। তবে পাবলিক হেলথ ইংল্যান্ড এই বিষয়ে কোনও মন্তব্য করতে অস্বীকার করেছে। জানানো হয়েছে, এই বিষয়ে আরও গবেষণার প্রয়োজন। ভারতীয় নতুন স্ট্রেন আগের থেকে বেশি মারণঘাতী কি না, সেই বিষয়েও রিপোর্টে কিছু জানানো হয়নি। তবে ভারতীয় নতুন স্ট্রেনে প্রবল শ্বাসকষ্ট দেখা দিচ্ছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here