kolkata news
Parul

 

ads

নিজস্ব প্রতিনিধি: নিউটাউন শাপুরজি আবাসনে এনকাউন্টারে এবার নাম জড়াল ভাঙড়ের। গ্যাংস্টারদের সঙ্গে যুক্ত থাকার সন্দেহে চার জনকে আটক করল কাশীপুর থানার পুলিস। কাশীপুর থানার অন্তর্গত চিনাপুকুর এলাকা থেকে তাদের আটক করে ভাঙড় থানায় নিয়ে যাওয়া হয়। ৩ জনের নাম অমনদীপ সিং, জসীর সিং ও রসুনজিৎ সিং। ভাঙড় থানায়  উচ্চপদস্থ আধিকারিকের উপস্থিতিতে কাশীপুর থানার পুলিশ দফায় দফায় জিজ্ঞাসাবাদ চালায় তাদের। জানা গিয়েছে, শাপুরজি এনকাউন্টারের ঘটনার পর থেকেই তারা চিনাপুকুর এলাকায় ঘাঁটি গড়তে শুরু করেছিল। এরপরেই পুলিশের হাতে উঠে আসে চাঞ্চল্যকর তথ্য। 

পুলিশ সূত্রে খবর চাম কাউর সিং নামে আটক হওয়া অন্য জন গত ৮-৯ বছর ধরে কাশীপুর থানার চিনাপুকুর গ্রামে বসবাস করছিলেন একজন পশু চিকিৎসক হিসেবে। ওই গ্রামের রাবিয়া বিবিকে তিনি বিয়ে করেন। এরপর তিনি নাম বদলে দাউদ নামে পরিচিত হন। তাদের দুই শিশু সন্তান আছে। কিছুদিন আগে অমনদীপ সিংহ ও রেশম জিৎ সিং নামে দুই আত্মীয় চিনাপুকুর গ্রামে আসেন ওদের বাড়িতে। পাশে একটি দোতলা বাড়ি বিশিষ্ট খাটালে কাজ করতেন। সেখানে তিনি গরু-মহিষদের চিকিৎসা করতেন।

দাউদের স্ত্রী রাবিয়া বিবির বক্তব্য, তার স্বামীর গতিবিধি সন্দেহজনক এবং চারিত্রিক ত্রুটি আছে। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে এসটিএফ। পুলিশ সূত্রে খবর, কাশীপুরের একটি নির্মিয়মান বহুতলের একটি ঘরের মধ্যে চারজনে মিলে থাকছিলেন। প্রত্যেকেই পাঞ্জাবের বাসিন্দা বলে খবর। এরপরই তাদের আটক করে থানায় নিয়ে আসা হয়। চলে জিজ্ঞাসাবাদ। জয়পাল ভুল্লার এবং জসপ্রীত জসসির সঙ্গে তাদের কোনও যোগ রয়েছে কিনা কিংবা এ শহরের আস্তানা তৈরিতে দুই গ্যাংস্টারকে এই চারজন কোনও সাহায্য করেছিলেন কিনা, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে সূত্রের খবর।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here