bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: সব কিছু একরকম পাকা। বড়সড় কোনও অঘটন না ঘটলে শুক্রবার ভোর ৫ টায় হচ্ছে নির্ভয়া কাণ্ডে ৪ দোষীর ফাঁসি। এহেন সময়েই শেষবারের জন্য নির্ভয়া কাণ্ডের অপরাধীর সঙ্গে শেষ সাক্ষাৎ করল তাদের পরিবার। যদিও অন্য এক অপরাধী অক্ষয় ঠাকুরের সঙ্গে শেষ সাক্ষাৎ করতে এল না তার পরিবার। জেলের তরফে বৃহস্পতিবার অক্ষয়ের স্ত্রী ও বাবা মাকে দেখা করতে আসার জন্য বলা হয়েছে। বৃহস্পতিবার অক্ষয়ের পরিবার তার সঙ্গে দেখা করতে আসবে বলে জানা যাচ্ছে। তবে মুকেশের পরিবার মুকেশের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবে কিনা সেটা নিয়ে সন্দেহ রয়েছে। কারণ এখনও জেলে দেখা করতে আসেনি তাঁরা।

জেল সূত্রে খবর, এমনিতে সপ্তাহে একদিন দোষীদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করার অনুমতি থাকে তাদের পরিবারের। ইতিমধ্যেই গত কয়েকমাসে একাধিকবার দোষীদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে গিয়েছে তাদের পরিবার। মৃত্যুর আগে শেষ দেখাটাও দেখে নিয়েছে দোষীদের পরিবারের লোকজন। সম্প্রতি পরিবারের সঙ্গে শেষ সাক্ষাতের পর কান্নায় ভেঙে পড়ে অপরাধীরা। পাশাপাশি, নির্ভয়া গণধর্ষণের দিন সে দিল্লিতে ছিল না বলে দাবি করে সম্প্রতি আদালতে মামলা দায়ের করেছিল মুকেশ। তার সে আর্জিও মঙ্গলবার খারিজ করে দিয়েছে আদালত। অন্যদিকে, মুকেশ ঠাকুর তিহার কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছিল বুধবার তার পরিবার দেখা করতে আসবে তার সঙ্গে।

এর কিছুর মাঝে আদালতের নির্দেশ মেনে জোরকদমে চলছে তিহারের অন্দরে ফাঁসির মহড়া। ডাকা হয়েছে জল্লাদকেও। কাউন্টডাউন শুরু হয়ে গিয়েছে ইতিমধ্যেই। তবে ফাঁসি থেকে দোষীদের রেহাই দিতে চেষ্টার কোনও কসুর করছেন না দোষীদের আইনজীবী এপি সিং। ফাঁসি রোধের জন্য আন্তর্জাতিক আদালতে তিনি মামলা দায়ের করবেন বলে জানিয়েছেন। কিন্তু ৩ বার ফাঁসি পিছিয়ে যাওয়ার পর শুক্রবার আদৌ ফাঁসি হবে কিনা তা জানতে মুখিয়ে রয়েছে গোটা দেশ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here