nlft-750x375

মহানগর ওয়েবডেস্ক: ত্রিপুরায় লোকসভা ভোটের প্রচারে জঙ্গি দলের সঙ্গে হাত মিলিয়েছে কংগ্রেস। তৃতীয় দফা নির্বাচনের প্রাক্কালে এমনই অভিযোগে সরব হয়েছেন ত্রিপুরার বিজেপি নেতৃত্ব। তাদের অভিযোগ, ত্রিপুরার জঙ্গি সংগঠন ‘ন্যাশনাল লিবারেশন ফ্রন্ট অব ত্রিপুরা’ (এনএলএফটি) কংগ্রেসের হয়ে প্রচার চালাচ্ছে। তথ্য-প্রমাণাদি সহ নির্বাচন কমিশনেও অভিযোগ পেশ করেছে বিজেপি। যদিও এই অভিযোগকে অস্বীকার করেছেন কংগ্রেস নেতৃত্ব। নির্বাচনে পরাজিত হবে বুঝতে পেরেই বিজেপি এই সমস্ত ভিত্তিহীন অভিযোগ তুলছে বলে তাদের দাবি। পুরো ঘটনাটি তদন্ত করে দেখার আশ্বাস দিয়েছেন ত্রিপুরার মুখ্য নির্বাচনী আধিকারিক শ্রীরাম তরণিকান্তি। নির্বাচনে অপ্রীতিকর ঘটনা রুখতে প্রতিটি বুথে কড়া নিরাপত্তার ব্যবস্থা হয়েছে বলেও তিনি জানিয়েছেন।

নির্বাচন কমিশন সূত্রে খবর, পূর্ব ত্রিপুরা কেন্দ্রে এনএলএফটি নেতৃত্বকে কংগ্রেসের হয়ে প্রচার চালাতে দেখা গিয়েছে অভিযোগ তুলে একটি ভিডিয়ো বার্তা কমিশনে জমা দিয়েছে বিজেপি। সেই ভিডিয়ো বার্তা সম্পর্কে ত্রিপুরা বিজেপির মুখপাত্র নব্যেন্দু ভট্টাচার্য জানিয়েছেন, এনএলএফটি-র স্বঘোষিত সচিব উৎপল দেববর্মা ওরফে উঠাই কংগ্রেসকে ভোট দেওয়ার জন্য জনগণের কাছে আবেদন জানাচ্ছিলেন। উঠাইয়ের সেই বক্তব্য বিজেপি রেকর্ড করেছে। এছাড়া নির্বাচনী প্রচারে নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন ‘অল ত্রিপুরা টাইগার ফোর্স’ (এটিটিএফ)-এর প্রাক্তন নেতা রঞ্জিত দেববর্মার সঙ্গে রাজ্য কংগ্রেস সভাপতি প্রদ্যুৎ মাণিক্যকে দেখা গিয়েছে। যদিও বিজেপির এই অভিযোগ ‘ভিত্তিহীন এবং মনগড়া’ বলে দাবি করেছেন ত্রিপুরা কংগ্রেসের সহ-সভাপতি তাপস দে।

প্রসঙ্গত, মঙ্গলবার পূর্ব ত্রিপুরা কেন্দ্রটিতে নির্বাচন। সুষ্ঠু এবং স্বচ্ছ নির্বাচন করতে মোট ৯৩০০ নিরাপত্তারক্ষী মোতায়েন করা হয়েছে। যার মধ্যে ৫৩০০ কেন্দ্রীয় আধাসেনা বাহিনী এবং ত্রিপুরা রাজ্য বাহিনীর ৪০০০ নিরাপত্তারক্ষী রয়েছেন বলে রাজ্যের এক পদস্থ পুলিশ আধিকারিক জানিয়েছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here