মহানগর ওয়েবডেস্ক: ভ্যাকসিন তৈরি একটা জটিল প্রক্রিয়া, সময় লাগে। বহু গুরুত্বপূর্ণ ধাপ থাকে। তাই ছয় সপ্তাহের মধ্যে কোনও ভ্যাকসিন বানিয়ে ফেলাও সম্ভব না। জানিয়েছেন ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গানাইজেশন (হু)-র প্রধান বিজ্ঞানী ডাঃ সৌম্যা স্বামীনাথন। কার্যত কেন্দ্রীয় সরকারের চিকিৎসা সংগঠন আইসিএমআর এবং ভারত বায়োটেকের ১৫ অগাস্ট ভ্যাকসিন আবিষ্কারের দাবি এভাবেই খারিজ করলেন তিনি।

সর্বভারতীয় সংবাদ মাধ্যম ইন্ডিয়া টুডে-কে এদিন এক সাক্ষাৎকার দিয়েছিলেন হু-এর প্রধান বিজ্ঞানী। সেখানেই ১৫ অগাস্ট ভ্যাকসিন আবিষ্কার সম্পর্কে তাঁর মতামত জানতে চাওয়া হয়। জবাবে তিনি সাফ জানিয়ে দেন, ‘না, ছয় সপ্তাহের মধ্যে ভ্যাকসিন আবিষ্কার কখনই সম্ভব না।’ এই ধরনের প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ করত সাধারণত কয়েক বছর সময় লাগে বলে জানান তিনি। যদিও বর্তমান পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে হু ভ্যাকসিন আবিষ্কারের সময়সীমা কিছুটা কমিয়েছে, এমনটাই জানিয়েছেন স্বামীনাথন।

‘বেশিরভাগ ভ্যাকসিন তৈরি করতে বহু বছর সময় লেগে যায়। কিন্তু, যে হেতু আমরা এই মুহূর্তে মহামারী পরিস্থিতির মধ্যে রয়েছে, হু সময়সীমা কমিয়ে দিয়েছে। খুব ইতিবাচক থেকেও যদি দেখা যায়, তবে তৈরি হওয়া শুরুর সময় থেকে পুরো প্রক্রিয়া শেষ হতে ১২-১৮ মাস সময় লেগে যায়।’ শুধু ক্লিনিয়াল ট্রায়াল পর্যায় শেষ করতেই ৬ থেকে ৯, অনেক সময় ১২ মাস সময় লেগে যায় বলে জানান তিনি। স্বামীনাথনের কথায়, ‘ভ্যাকসিন তৈরির সময়সীমা কম করা যায় কিন্তু যেই প্রক্রিয়াটা অনুসরণ করতে হয় তা এড়িয়ে যাওয়া কোনও ভাবেই সম্ভব নয়। বিশেষ করে কোভিড-১৯ ভাইরাসের ক্ষেত্রে কারণ এর ভ্যাকসিন আবিষ্কারের পদ্ধতিও নতুন।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here