Parul

মহানগর ডেস্ক: ভারতে করোনা পরিস্থিতি সামাল দিতে বিশেষজ্ঞরা ভরসা রাখছেন ভ্যাকসিনের উপর। ইতিমধ্যেই টিকাকরণ করা হচ্ছে কোভ্যাক্সিন, কোভিশিল্ড এবং স্পুটনিক ভি দিয়ে। এবার ভারতীয় বাজারে আসতে চলেছে বিদেশি ভ্যাকসিন নোভাভ্যাক্স। সোমবার এই ভ্যাকসিনের মার্কিন ভিত্তিক ট্রায়াল পর্বে সম্পন্ন হয়েছে। এই ট্রায়ালে প্রকাশিত তথ্য অনুযায়ী, করোনা আটকাতে ৯০ শতাংশ কার্যকর এই ভ্যাকসিন।

ads

এই ভ্যাকসিন প্রস্তুতকারক সংস্থা জানিয়েছে, ‘মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও মেক্সিকোর মোট ৩০ হাজার সেচ্ছাসেবকের উপর এই ট্রায়াল পর্ব চালানো হয়েছিল। নোভাভ্যাক্স উচ্চতর আক্রান্তদের ক্ষেত্রে কাজ করেছে ১০০ শতাংশ। মাঝারি ও গুরুতর আক্রান্তদের ক্ষেত্রে ৯০.৪ শতাংশ কাজ করেছে।’ এছাড়াও সংস্থার তরফ থেকে জানান হয়েছে, ২০২১ সালে তৃতীয় ত্রৈমাসিকে জরুরি ভিত্তিতে অনুমোদনের জন্য আবেদন করা হবে।

সংস্থার প্রেসিডেন্ট স্ট্যানলি সি এর্ক জানিয়েছেন, অনুমোদন পাওয়ার পর সংস্থা প্রতিমাসে ১ কোটি টিকা তৈরি করাবে। এরপর ২০২১ সালের শেষে প্রতি মাসে দেড় কোটি টাকা তৈরি করতে পারবে। যা সারা বিশ্বের ভিন্ন ভ্যারিয়েন্টয়ের করোনা রুখতে সক্ষম হবে। ভারতে এই ভ্যাকসিন তৈরি করবে সেরাম ইনস্টিটিউট অফ ইন্ডিয়া। নোভাভ্যাক্সএর টিকার নাম NVX-CoV2373। এই ভ্যাকসিন সংরক্ষিত রাখার ক্ষেত্রে খুব কম তাপমাত্রার প্রয়োজন হয় না। ২-৮ ডিগ্রি তাপমাত্রায় সংরক্ষণ সম্ভব। ফলে এই টিকা খুব সহজেই দেশের বিভিন্ন প্রান্তে পৌঁছনো সম্ভব।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here