kolkata news

 

নিজস্ব প্রতিনিধি, বারাসত: সত্তরোর্ধ্ব বৃদ্ধ দম্পতির বাড়িতে একা থাকার সুযোগ নিয়ে চুরি করতে আসে চোর। ধারালো অস্ত্র দিয়ে বৃদ্ধকে কোপানোর পাশাপাশি বৃদ্ধার স্ত্রীকেও এলোপাতাড়ি মারধর করল প্রতিবেশী যুবক এক দুষ্কৃতী। ওই বৃদ্ধ এবং বৃদ্ধার থেকে টাকা-পয়সা কিছু না পাওয়ায় তাদের দুটি মোবাইল ফোন নিয়ে চম্পট দেয় দুষ্কৃতী। মোবাইল দুটি দাম ৮০০০ টাকা। ঘটনাটি ঘটেছে দেগঙ্গার কলসুর গ্রাম পঞ্চায়েত তরফদার পাড়া এলাকায়। আক্রান্ত বৃদ্ধার নাম কৃষ্ণা চক্রবর্তী ও তার স্বামী অনাদি প্রসাদ চক্রবর্তী।

দু’জনেই ওই বাড়িতে থাকেন। জানা যায়, মঙ্গলবার রাত বারোটা নাগাদ তাদের ছাদের সিঁড়ির ঘরের দরজা ভেঙে ওই দুষ্কৃতী ভেতরে ঢোকে। ঘরের মধ্যে তাণ্ডব চালাতে থাকে টাকা পয়সা নেওয়ার উদ্দেশ্যে।  সেই সময় শব্দে ঘুম ভেঙে যায় বৃদ্ধ এবং বৃদ্ধার। ঘুম থেকে উঠে প্রতিবেশী ওই দুষ্কৃতী যুবককে দেখে তারা চিনতে পারেন।

বৃদ্ধ চিৎকার-চেঁচামেচি করে পাড়ার লোকদের ডাকার চেষ্টা করেন। সেই সময় দুষ্কৃতী তার হাতে থাকা ধারালো অস্ত্র দিয়ে বৃদ্ধর হাতে কোপ মারে এবং তার স্ত্রীকে এলোপাতাড়ি মারধর করে। প্রাণ বাঁচানোর তাগিদে তারা ঘরের দরজা খুলে দিলে সেখান থেকে চম্পট দেয় দুষ্কৃতী। খবর পেয়ে রাতেই ঘটনাস্থলে পৌঁছয় দেগঙ্গা থানার পুলিশ। ওই দম্পতির অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত শুরু করেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here