news national

মহানগর ওয়েবডেস্ক: এ পৃথিবী তাঁর চেনা নয়, বদলে গেছে অনেক কিছুই। দীর্ঘ ৭ মাস পর বন্দিদশা থেকে মুক্তি পেয়ে উপলব্দি জম্মু-কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ওমর আব্দুল্লাহর। ধারা 370 বাতিলের পরেই ভূ-স্বর্গে আটক করা হয় তাঁকে। সঙ্গে ছিলেন বাবা ফারুক আব্দুল্লাহও। একইসঙ্গে আটক করা হয় মেহবুবা মুফতিকেও। দু সপ্তাহ আগে ছাড়া পেয়েছেন ফারুক, এবার মুক্ত হলেন ছেলে।

এদিন ডিটেনশন থেকে মুক্তি পেয়ে ওমর আবদুল্লাহ জানিয়েছেন, ‘২৩২ দিন পর হরি নিবাস থেকে মুক্তি পেলাম। আজ পৃথিবীটা একটু অন্যরকম, ২০১৯ সালের ৫ অগাস্ট যেমন ছিল সেই রকম নয়।’ এই টুইট করে নিজের মুক্তির বিবৃতি এবং একটি ছবি দিয়েছেন ওমর আব্দুল্লাহ।

গত বছর ৫ অগাস্ট থেকে ডিটেনশন রয়েছেন জম্মু-কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী। মূলত ধারা ৩৭০ বাতিল হওয়ার পর থেকেই ওমর আব্দুল্লাহ ফারুক আব্দুল্লাহ, মেহবুবা মুক্তিসহ একাধিক নেতাকে বন্দি করেছিল কেন্দ্রীয় সরকার। ফারুক আব্দুল্লাহ মুক্তি পেয়েছেন এবার তার ছেলে ওমর মুক্তি পেলেন।

প্রসঙ্গত, বন্দিদশা থেকে মুক্তি পাওয়ার পরেই ছেলে ওমরের সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন ফারুক আব্দুল্লাহ। শ্রীনগরের হরি নিবাসে আটক ছেলের সঙ্গে দেখা করেন তিনি। মুক্তি পাওয়ার পর সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে তিনি বলেন, ‘যারা যারা আমার জন্য প্রার্থনা করেছেন তাদের সবাইকে ধন্যবাদ’। তবে এও জানিয়ে দেন, সম্পূর্ণ স্বাধীনতা এখনও মেলেনি কারণ অন্যরা এখনও বন্দি রয়েছেন।

জম্মু-কাশ্মীরের প্রাক্তন দুই মুখ্যমন্ত্রী ওমর, ফারুকের মুক্তি হলেও অন্য একজন মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতির মুক্তির ব্যাপারে এখনো ধোঁয়াশা রয়েছে। তাঁকে নিয়ে কোনরকম নির্দেশিকা বা বিবৃতি এখনও প্রকাশিত হয়নি। তবে মনে করা হচ্ছে, ফারুক এবং ওমরের মুক্তির পরেই হয়তো মুক্তি মিলতে পারে মেহবুবার। তবে কী হবে তা সময়ই বলবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here