kolkata bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: সামনেই আসতে চলছে ভ্রমণের মরশুম। অনেক পরিকল্পনাই করে রেখেছেন, এখন শুধু বাকি রেল টিকিটটা বুক করা। তবে একটু সমঝে। যত জলদি টিকিট বুক করে নেওয়া যায় ততই শ্রেয়। কারণ বাড়তে চলছে অনলাইন টিকিট বুকিং এর খরচা। বিগত তিন বছর আগে জনগনকে অন-লাইন কেনাকাটায় উৎসাহী করতে উদ্যোগী হয়েছিল রেল মন্ত্রক। মুকুব করে দেওয়া হয়েছিল সার্ভিস ট্যাস্ক। এবার সেই আই আর সিটিসিই দাম বাড়াতে চলছে রেলের অনলাইন টিকিটের। এখন থেকে আই.আর.সিটিসি এর মাধ্যেমে টিকিট কাটলে গুনতে হবে অতিরিক্ত মাশুল বা দিতে হবে সার্ভিস ট্যাক্স। গত সপ্তাহেই রেল কর্তৃপক্ষ নির্দেশ দিয়েছিল ইন্ডিয়ান রেলওয়েস ক্যাটেরিং এন্ড ট্যুরিসম কর্পোরেশন টিকিটের সঙ্গে অতিরিক্ত সার্ভিস ট্যাক্স জুড়তে হবে।

রেলমন্ত্রক সূত্রে জানান হয়, বিগত তিন বছর ধরে এই সুবিধা দিতে গিয়ে লোকসান মুখী হয়েছে আই আর সিটিসি। ২০১৬ – ১৭ অর্থবর্ষে রেলের ই-টিকিট থেকে প্রায় আয় ২৬ শতাংশ ক্ষতির মুখে পড়েছে। রেলের তরফে জানান হয়, অর্থমন্ত্রকের তরফে আগেই বলা হয়েছিল মানুষকে ই-টিকিটে অভ্যস্ত করতেই এই পদক্ষেপ ছিল। আগেই বলা হয়েছিল এই পদক্ষেপ ক্ষণস্থায়ী হবে। মানুষ এবিষয়ে সরগর হয়ে গেলেই তুলে নেওয়া হবে এই ভর্তুকি। আই আর সিটিসির তরফে সার্ভে পেশ করে জানান হয় এতদিনে মানুষ অনেক বেশি ই-টিকিটে নির্ভরশীল হয়ে গেছে। তাই এখন থেকে আবার চালু করা হচ্ছে টিকিটের সঙ্গে থাকা অতিরিক্ত সার্ভিস ট্যাক্স। আগে নন এসি রেল যাত্রায় এই ট্যাক্সের পরিমাণ ছিল টিকিটের দামের সঙ্গে অতিরিক্ত ২০টাকা এবং এসিতে সফরে গুনতে হত অতিরিক্ত ৪০টাকা। যদিও তিন বছরে আগের এই সেবা করের সঙ্গে কতটা সামঞ্জস্য নির্ধারিত করা হবে নতুন সেবা করে তা এখনও জানা যায়নি।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here