ডেস্ক: পাকিস্তানবাসীর বিপুল পরিমাণ সমর্থনে ইমরান খানের দল পিটিআইয়ের সরকার গঠন এক প্রকার নিশ্চিত বলে মনে করছে বিশেষজ্ঞ মহল। কিন্তু ওই নিশ্চয়তার মধ্য থেকেই উঠে আসছে অনিশ্চয়তার সম্ভাবনা। পাক নির্বাচনে পিটিআইয়ের বিরুদ্ধে কারচুপির অভিযোগ তুলে একজোট হতে চলেছে সমস্ত বিরোধী দলগুলি। আর তার জেরেই আশঙ্কার কালো মেঘ দেখতে শুরু করেছে ইমরানের দল।

এমনিতে পাকিস্তানে সরকার গঠনের জন্য প্রয়োজন ২৭২ টি আসনের মধ্যে দরকার পড়ে ১৩৭ টি, সেখানে ১১৬ টি আসনে জিতেছে ইমরানের দল তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই)। বাকি সংখ্যাটা ভরাট করতে ছোট দলগুলির সঙ্গে জোট বাধার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। আর সেখানেই বিপত্তি! একটি সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, নির্বাচনে কারচুপির অভিযোগ তুলে ইমরানের দলের বিরুদ্ধে যেতে শুরু করেছে সমস্ত বিরোধী দলগুলি। ইতিমধ্যেই পাকিস্তানের দুটি অন্যতম প্রধান রাজনৈতিক দল পিএমএল (নওয়াজ) ও পিপিপি হাত মিলিয়েছে। তাদের সঙ্গে যোগ দিয়েছে বেশ কয়েকটি ছোট দলও। এই দলগুলির জোটের নাম দেওয়া হয়েছে ‘অল পার্টি কনফারেন্স’। আর এটাই এখন সবচেয়ে বড় বিপদ হিসাবে চোখের সামনে ভাসছে ইমরানের কাছে।

বিরোধীদের তরফে অভিযোগ করা হয়েছে, পাক সেনার সাহায্য নিয়ে নির্বাচনে ব্যাপক কারচুপি করে গিয়েছে পিটিআই। আর তারই প্রতিবাদে বাকি দলগুলি সম্মিলিতভাবে ইমরানের দলের বিরুদ্ধে যেতে শুরু করেছে। বিরোধীদের তরফে বলা হয়েছে%