Home Latest News অভিনন্দন রেহাই পেলেও ওইদিন পাকিস্তানীদের হাতেই খুন হন এফ-১৬ পাইলট

অভিনন্দন রেহাই পেলেও ওইদিন পাকিস্তানীদের হাতেই খুন হন এফ-১৬ পাইলট

0
অভিনন্দন রেহাই পেলেও ওইদিন পাকিস্তানীদের হাতেই খুন হন এফ-১৬ পাইলট
Parul

ডেস্ক: বুধবারের সকাল ভারতের অনুপ্রবেশের চেষ্টারত এফ-১৬ বিমানগুলিকে পাল্টা দিতে আকাশে ওড়ে ভারতের দুটি মিগ-২১। মিগ এফ-১৬ কে দেশছাড়া করলেও আকাশে দুই পক্ষের গোলাগুলি চলতে থাকে দীর্ঘক্ষণ ধরে ঘটনার জেরে পাকিস্তানের মাটিতে আছড়ে পড়ে দুটি যুদ্ধবিমান যার একটিতে ছিলেন ভারতের উইং কম্যান্ডর অভিনন্দন বর্তমান ও অন্য বিমানটিতে ছিলেন এফ-১৬ যুদ্ধবিমানের চালক পাক উইং কম্যান্ডর শাহাজুদ্দিন। সেদিনের ঘটনায় উন্মত্ত স্থানীয় জনতার হাত থেকে অভিনন্দন রেহাই পেলেও, নিজেদের দেশের লোকের হাতে গণপিটুনি খেয়েই মরতে হল পাক পাইলট শাহাজুদ্দিনকে। যদিও পাক সরকারের তরফে এই সম্পর্কে কোনও বক্তব্য পেশ না করা হলেও সংবাদ মাধ্যম সূত্রে জানা যাচ্ছে এমনটাই।

সংবাদ মাধ্যমসূত্রে খবর, ওই দিন এফ-১৬ বিমান ধ্বংসের পর অভিনন্দনের মতোই প্যারাশুটে করে নামেন পাক পাইলট শাহাজুদ্দিন। তবে স্থানীয় বাসিন্দারা ভাবে শাহাজুদ্দিন ভারতের পাইলট। আর এই ভ্রান্তির জেরে তাঁকে বেধড়ক মারধোর শুরু করে স্থানীয় যুবকরা। তবে যতখনে ভুল ভাঙে তখন অনেকটাই দেরি হয়ে গিয়েছে। স্থানীয়দের মারে তখন আধমরা পাক পাইলট। কোনওমতে তাঁকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে সেখানেই মৃত্যু হয় তাঁর। তবে এই ঘটনার কথা পাকিস্তানের পক্ষ থেকে স্বীকার করা হয়নি। স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের তরফে জানা গিয়েছে। অন্যদিকে, অভিনন্দন পাকিস্তানের মাটিতে নামার পরই উত্তেজিত জনতার হাত থেকে রেহাই পেতে একটি পুকুরে ঝাঁপ দেন। সেখান থেকেই তাঁকে উদ্ধার করে পাক সেনা।

প্রসঙ্গত, পাকিস্তানের হাতে বন্দি হওয়ার পর কূটনৈতিক চাপের মুখে পড়ে গতকালই অভিনন্দনকে মুক্তি দিতে বাধ্য হ ইমরান খান। দীর্ঘ টালবাহানার পর পাকিস্তানের লাহোর থেকে ওয়াঘা বোর্ডার হয়ে ভারতে ঢোকেন অভিনন্দন। তাঁকে স্বাগত জানাতে সেদিন সেখানে উপস্থিত ছিলেন বায়ুসেনার একাধিক কর্তা সহ দেশবাসী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here