kolkata news

মহানগর ওয়েবডেস্ক:  ফের পাকিস্তানিদের ট্রোলের শিকার হলেন গায়ক আদনান শামি। চলতি বছরেই ১৫ অগাস্ট ভারতের স্বাধীনতা দিবসের শুভেচ্ছা জানিয়ে সোশ্যাল মিডিয়াতে ট্রোল্ড হন আদনান। গতকাল ভারতের নাম বিকৃত করে আদনানকে ট্যাগ করেন এক নেটিজেন। তাঁকে জবাব দেওয়ার জন্যই এবার সোশ্যাল মিডিয়াতে পাকিস্তানিদের বিরুদ্ধে বার্তা দেন আদনান। এদিন তিনি জানান, ”পাকিস্তানের মানুষের চূড়ান্ত অশিক্ষিত, ব্যাকরণগৎ ভাবেই পিছিয়ে পড়া শ্রেণীর মানুষ।” ওই পাকিস্তানি নেটিজেন টুইট করে জানান, ”বেশিরভাগ পাকিস্তানিরা ব্যাকরণগ ভাবে, ইন্ডিয়াকে এন্ডিয়া বলে আর মোদীকে মুডি বলে।” তাঁর উত্তরেই আদনান কড়া ভাষায় আক্রমণ করেন ওই নেটিজেনকে।

তবে এটা নতুন নয় আদনানের সঙ্গে সোশ্যাল মিডিয়াতে এমনটা চলতেই থাকে। কারণ, ব্রিটেনে জন্মগ্রহণ করা এই গায়ক আগে থাকতেন পাকিস্তানে। তাঁর কানাডার নাগরিকত্বও ছিল। কিন্তু ২০১৬ সালে ভারতে থাকাকালীন তাঁর ভিসা বাতিল করে দেয় পাকিস্তান সরকার। যার জন্য ভারত সরকারের কাছে অনুরোধের মাধ্যমে ভারতের নাগরিকত্ব পান আদনান। জন্মু-কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা বিলোপের জন্য বর্তমান কেন্দ্রীয় সরকারের ভূয়শী প্রশংসা করেন আদনান শামি। তখন পাকিস্তানের নেটিজেনেরা তাঁকে আক্রমণ করলে পাল্টা টুইটারে আক্রমণ শানান আদনান।

তখন তিনি জানান, ”পাকিস্তানের সেনাদের আমি ঘৃণা করি, ওরা শুধুই যুদ্ধের উসকানি দেয়। তাঁদের জন্যই পাকিস্তানে গণতন্ত্র নেই।” কিছুদিন আগেই সোশ্যাল মিডিয়াতে নেটিজেনেরা আদনানের ছেলে আজানকে পাকিস্তানের বাসিন্দা বলতে জোর দেন। যদিও আদনানের কথা মতো না গিয়ে আজান স্পষ্ট জানান, ”হতে পারে আমার ছোটবেলা কেটেছে ভারতে কিন্তু আমি পাকিস্তানকেই নিজের ঘর হিসাবে মনে রাখি। এর জন্য আমি খুবই গর্বিত।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here