bengali news

মহানগর ওয়েবডেস্ক: কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে শুক্রবার রাজ্যের আইনশৃঙ্খলার অবনতি নিয়ে একরাশ অভিযোগ করেছেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়। রাজ্যে যে পরিস্থিতি তৈরি হচ্ছে তা উদ্বেগজনক বলেও মন্তব্য করেছেন তিনি। এই ঘটনার পর এবার পাল্টা রাজ্যপালকে আক্রমণ শানালেন তৃণমূল মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায়। রাজ্যপালকে ‘প্রচারপাল’ বলেও কটাক্ষ করতে ছাড়েননি তিনি।

শুক্রবার দিল্লিতে গিয়ে অমিত শাহের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছিলেন জগদীপ ধনকড়। এর ঠিক পরই কলকাতায় সাংবাদিক বৈঠক করে পার্থ চট্টোপাধ্যায় বলেন, ‘রাজ্যের সাংবিধানিক প্রধান হিসেবে যিনি রয়েছেন, তিনি আসলে রাজ্যপাল নাকি প্রচারপাল, তা বোঝা মুশকিল।’ এর ঠিক পরই আক্রমণের সুর আরও চড়িয়ে তিনি বলেন, ‘কেন্দ্রের জনবিরোধী সমস্ত সিদ্ধান্তের একমাত্র কট্টর বিরোধী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বাংলাকেও আগলে রেখেছেন তিনি। তাই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে অপমান করা মানে বাংলাকেই অপমান করা।’

শুধু পার্থ চট্টোপাধ্যায় নয়, ‘কোনও রাজ্যপাল স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করতেই পারেন। সেটার অধিকার তাঁর আছে কিন্তু সেটা করতে গিয়ে কোনও রাজনৈতিক দলের মন জুগিয়ে চললে সেটা সমস্যার। উনি যদি সত্যি রাজ্যের ভালো চান তবে সেই মতো অভিযোগ করুন।’

উল্লেখ্য, এদিন অমিত শাহের সঙ্গে সাক্ষাৎ করার পর এক টুইটে জগদীপ ধনকড় লেখেন, ‘কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের বাড়িতে তাঁর সঙ্গে ৩০ মিনিটেরও বেশি সময় ধরে কথা হয়েছে আমার। এই বৈঠকে পশ্চিমবঙ্গের জটিল পরিস্থিতি ও নির্বাচন পূর্বে আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে কথা হয়েছে আমাদের।’ এছাড়াও, এদিন সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে রাজ্যপাল একরাশ অভিযোগ তুলে ধরেন রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধে। তিনি জানান, ‘রাজনৈতিক স্বার্থপূরণে সরকারি টাকার অপব্যবহার চলছে রাজ্যে।’ পাশাপাশি তাঁর দাবি, ‘বাংলায় কোনও নির্বাচন শান্তিপূর্ণ হয় না। কমিশন যাতে রাজ্যসরকারের ‘রবার স্ট্যাম্প’ না হয় তার জন্য কমিশনারকে জানিয়েছি।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here