ডেস্ক: পাঁচ দিনের সফরে এবার আফ্রিকা উড়ে গেলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ব্রিকসের অংশীদার রূপে এই প্রথম কোনও দেশ দ্বিপাক্ষিক এবং বহুপাক্ষিক সম্মেলনে অংশ নেবে। এই সফরের মাধ্যমে ভারতের বিদেশ নীতির উপরই সবথেকে বেশি জোর দেওয়া হচ্ছে বলে জানা গিয়েছে। পাঁচদিনের এই সফরে আফ্রিকার রোয়ান্ডা, উগান্ডা ও দক্ষিণ আফ্রিকায় যাবেন মোদী। দক্ষিণ আফ্রিকায় ব্রিকসের দেশগুলি; যথা ব্রাজিল, রাশিয়া, ভারত, চিন ও দক্ষিণ আফ্রিকার রাষ্ট্রপ্রধানদের সঙ্গে বৈঠক বসবেন তিনি। ২৫-২৭ জুলাই পর্যন্ত চলবে ব্রিকসের এই সম্মেলন।

মূলত প্রতিরক্ষা ও কৃষি ক্ষেত্রে সহযোগিতাই অগ্রাধিকার পাবে এই বৈঠকগুলিতে। এছাড়াও দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক এবং ব্যবসা বাণিজ্য নিয়ে আলোচনা করা হবে। প্রথমে রোয়ান্ডা সফরে গিয়ে এদাধিক কর্মসূচী রয়েছে প্রধানমন্ত্রীর। এরপর উগান্ডার সংসদে বিশেষ বক্তব্য রাখবেন প্রধানমন্ত্রী। প্রথম ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী হিসেবে উগান্ডার সংসদে বক্তব্য পেশ করবেন তিনি। এছাড়াও আফ্রিকায় বসবাসকারী ভারতীয়দের সঙ্গেও সাক্ষাৎ করবেন মোদী।

এই সফরের মাধ্যমে বেশ কয়েকটি চুক্তিও বিভিন্ন দেশের সঙ্গে তিনি স্বাক্ষর করবেন বলে জানা গিয়েছে। প্রায় ১০০ মিলিয়ন ডলার মূল্যের প্রতিরক্ষা, বাণিজ্য, সংস্কৃতি, কৃষি ও দুগ্ধ উৎপাদন সংক্রান্ত বেশ কয়েকটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হবে বলে জানিয়েছে বিদেশ মন্ত্রক। আফ্রিকার মতো মহাদেশে প্রধানমন্ত্রীর এই সফর যে আন্তর্জাতিক স্তরে বৈদেশিক নীতির ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নেবে, তা এখন থেকেই বলে দেওয়া যায়।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here