নিজস্ব প্রতিবেদক, বনগাঁ: ভাগারের মাংস কান্ডে এবার উত্তর ২৪ পরগনা জেলার ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত লগোয়া বনগাঁ শহরে হানা দিল বনগাঁ পুরসভা কর্তৃপক্ষ। শনিবার পুলিশ এবং পৌরসভার স্বাস্থ্য দপ্তরের আধিকারিকরা যৌথভাবে হানা দিল শহরের একাধিক রেস্তোরাঁয়। সেখানে গিয়ে কোথাও মিলল পচা বিরিয়ানি, কোথাও বা মিলল পচা খাবার, যার দরুন দুটি রেস্টুরেন্ট সিলও করে দিল বনগাঁ থানার পুলিশ। কলকাতার পর এই ভাগাড়ের মাংস কাণ্ডের রেশ এখন ছড়িয়ে পড়েছে প্রায় গোটা রাজ্য জুড়ে। আতঙ্কে খাদ্য রসিক বাঙালিরা। গত দুদিন ধরে জেলারই নানা পুরসভা এলাকায় চলছিল হোটেল-রেস্তোরাঁ গুলিতে বিশেষ তল্লাশি অভিযান।

এদিন সীমান্ত লাগোয়া বনগাঁ শহরে বাটার মোড়, স্টেট ব্যাঙ্ক লাগোয়া এবং বনগাঁ-চাকদা রোডের বিভিন্ন আবাসিক হোটেল এবং রেস্টুরেন্টে মিলেছে পঁচা মাছ মাংস এবং একটি আবাসিক হোটেলের ফ্রিজ থেকে মিলেছে পঁচা বিরিয়ানি। তারপরেই যে সমস্ত রেষ্টুরেন্টে মিলেছে এই ধরনের খাবার সেই রকম দুটি দোকান সিল করা হয়েছে বনগাঁ পৌরসভার পক্ষ থেকে। ওই সব জিনিসের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করতে পাঠানো হয়েছে। রেষ্টুরেন্ট ও হোটেল মালিকদের বক্তব্য, তারা ওই খাবার বিক্রি করেন না, ফ্রিজে রেখেছিলেন কিন্তু ভুলে গেছেন ফেলে দিতে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here