এবার দিল্লির একটি মসজিদে বড় জমায়েতকে কেন্দ্র করে এবার করোনা সংক্রমণের আশঙ্কা ছড়াল কয়েক হাজার মানুষের মধ্যে। এই ঘটনার জেরে প্রায় ২০০০ জনকে কোয়ারেন্টিনে পাঠানো হয়েছে। আশঙ্কা করা হচ্ছে, এই মসজিদে জমায়েতের জেরে অনেকের শরীরে সংক্রমণ ছড়াতে পারে। দেশে এই প্রথম এত জন করোনা সন্দেহভাজনদের একসঙ্গে নমুনা পরীক্ষা করে দেখা হচ্ছে। অন্যদিকে দিল্লিতে এদিনই নতুন করে ২৫ জনের আক্রান্ত হওয়ার খবর মিলেছে। ফলে দিল্লিতে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ৯৭।

শঙ্কার বিষয় হচ্ছে, এই জমায়েতে উপস্থিত ছিলেন এমন এক ব্যক্তি তামিলনাড়ুতে মারা গেছেন,যদিও করোনায় তার মৃত্যু হয়েছে কি-না তা নিশ্চিত নয়। ফলে ২০০০ জনকে কোয়ারেন্টিনে পাঠানোর পাশাপাশি নমুনা পরীক্ষা করা হচ্ছে ১৭৫ জনের। এদের অনেকেই করোনায় আক্রান্ত হয়ে থাকতে পারেন বলে স্থানীয়রা মনে করছেন। সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে লকডাউনে সাধারণ মানুষের চলাচলকে মূলত নজরদারিতে রাখতেই ড্রোন ব্যবহার করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে দিল্লি পুলিশ। ‘সিল’ করে দেওয়া হয়েছে গোটা এলাকা। পুলিশ সেখানে টহল দিচ্ছে যাতে কেউ সেখানে ঘুরে বেড়াতে না পারে।

জানা গেছে, চলতি মাসের মাঝামাঝি বাংলাওয়ালি মসজিদে একটি অনুষ্ঠানের বহু মানুষের জমায়েত হয়েছিল। স্থানীয় বাসিন্দারা ছাড়াও ওই জমায়েতে আমন্ত্রিত ছিলেন মালয়েশিয়া, ইন্দোনেশিয়া, সৌদি আরব এবং কিরঘিজস্তানের নাগরিকেরা। ঘটনাচক্রে, ওই অনুষ্ঠানে যোগদানের পর চলতি মাসে এক জনের মৃত্যু হয়েছে। যদিও তিনি করোনায় মৃত্যু কিনা তা স্পষ্ট নয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here