এলাকা দখলকে কেন্দ্র করে কোচবিহারের মাথাভাঙায় রাজনৈতিক উত্তেজনা

0
kolkata news

নিজস্ব প্রতিনিধি, কোচবিহার: এলাকা দখলকে কেন্দ্র করে উত্তপ্ত কোচবিহারের মাথাভাঙার শীতলকুচি ব্লকের ডাকঘরা বাজার। বোমাবাজি, বাইক ভাঙচুর, দলীয় কার্যালয় ভাঙচুর ঘিরে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে ডাকঘড়া বাজার। আজ দুপুরে ঘটনাটি ঘটেছে। জানা গিয়েছে, এলাকা দখলকে কেন্দ্র করে রাজনৈতিক উত্তেজনা তৈরি হয় ডাকঘর এলাকায়। বিজেপির অভিযোগ, তৃণমূল কংগ্রেসের হার্মাদ বাহিনী সকাল থেকেই উত্তপ্ত পরিবেশ তৈরি করে ডাকঘরে বাজারে। লাঠিসোটা নিয়ে মিছিল করে। এবং বিজেপির দলীয় কার্যালয়ে ভেঙে দেওয়া হয়। বন্ধ হয়ে যায় ঘাগড়া বাজার এলাকার সমস্ত দোকানপাট।

এই পরিস্থিতিতে বিশাল পুলিশ বাহিনী এলাকায় টহল দেওয়া শুরু করে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসেন মাথাভাঙা থানার আইসি প্রদীপ সরকার, শীতলকুচি থানার ওসি কাজল সরকার সহ বিশাল পুলিশবাহিনী। এলাকার মানুষজন ভীত-সন্ত্রস্ত হয়ে পড়ে। ডাকঘরে বাজারে থাকা সেন্ট্রাল ব্যাংক, গ্রাম পঞ্চায়েত অফিস বন্ধ হয়ে যায়। বিজেপি নেতা অভিজিৎ বর্মন বলেন, বেশ কিছুদিন থেকে শীতলকুচি এলাকায় তৃণমূল কংগ্রেসের হার্মাদ বাহিনীর এলাকায় অশান্ত তৈরি করছে। আমাদের বেশকিছু পার্টি অফিস ভেঙে দিয়েছে। আজকেও ডাকঘর বাজারে দলীয় কার্যালয় ভেঙে দেয় তৃণমূল কংগ্রেস। পুলিশের সামনেই এই ঘটনা ঘটে।

বেশ কয়েকটি বোমা ফাটানো হয় ডাকঘর বাজারে। পুলিশ নীরব দর্শকের ভূমিকা পালন করে বলে অভিজিতবাবুর অভিযোগ। যদিও তাঁদের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে দাবি করেছেন তৃণমূল কংগ্রেস নেতা আজিজুর রহমান। তিনি বলেন, কয়েকদিন আগে বিজেপির মণ্ডল সভাপতি তৈরি হয়েছে। একে ঘিরেই তাদের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব। আজকের ঘটনা গোষ্ঠীদ্বন্দ্বের ফল। তৃণমূল কংগ্রেসের সঙ্গে যুক্ত নয়। বিজেপি উন্নয়নকে স্তব্ধ করতেই এলাকায় অশান্তি তৈরি করছে। জনগণ তার জবাব দেবে। বর্তমানে ডাকঘর বাজার বেশ উত্তপ্ত। বিশাল পুলিশ বাহিনী টহল দিচ্ছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here