kolkata bengali news

ডেস্ক: কংগ্রেস যদি লোকসভা নির্বাচনে জেতে তাহলে রাহুল গান্ধীই প্রধানমন্ত্রী হবেন। বুধবার আমেঠির এক জনসভায় দাঁড়িয়ে আত্মবিশ্বাসের সুরে এমনটাই জানালেন কংগ্রেস নেত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধী ভাদরা। নির্বাচনের আগে এই প্রথম কংগ্রেসের তরফ থেকে রাহুলের প্রধানমন্ত্রী হওয়ার প্রসঙ্গে মুখ খুললেন তিনি।

এদিন প্রিয়াঙ্কা বলেন, আগামী লোকসভা নির্বাচনে কংগ্রেসের জয় পুরোপুরি নিশ্চিত। আর রাহুল গান্ধীই দেশের আগামী প্রধানমন্ত্রী হবেন। যদিও অন্যদিকে প্রধানমন্ত্রীর প্রার্থী কে হবেন সে বিষয়ে কোনও চূড়ান্ত বৈঠক হয়নি। এমনকি রাহুল গান্ধীও এই বিষয়ে এখনও অবধি মুখ খুলতে নারাজ। তবে ডিএমকে, আরজেডি বা জেডিএস এরা সকলে রাহুল গান্ধীকেই প্রধানমন্ত্রীর পদপ্রার্থী হিসেবে দেখার ইচ্ছা জাহির করেছেন। তবে তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বা এনসিপি নেতা শরদ পাওয়ার এই মতকে একেবারেই সমর্থন করতে নারাজ। তাঁদের বক্তব্য, আগামী দিনে প্রধানমন্ত্রী কে হবেন তা লোকসভা নির্বাচনের ফলাফলের পরেই ঠিকঠাক করা হবে। প্রিয়াঙ্কা বলেন, উত্তরপ্রদেশে আগামী বিধানসভা নির্বাচনে কংগ্রেসের সরকার গড়ার দায়িত্ব রাহুল আমায় দিয়েছে। যেনতেন প্রকারে এই দায়িত্ব আমি পালন করব। এর পাশাপাশি তিনি নিজের দলিয় কর্মীদের উদ্দেশ্যে বার্তা দেন যে, প্রত্যন্ত গ্রামে গিয়ে বিজেপির সকল ভাঁওতাবাজি, কারচুপির বিষয়ে সাধারণ মানুষকে সতর্ক করুন।

 

কয়েকদিন আগেই রাজনৈতিক মহলে কান পাতলে শোনা যাচ্ছিল, লোকসভা লোকসভা নির্বাচনে দলের প্রচারে প্রিয়াঙ্কাকে দেখা যাবে কিন্তু ভোটে দাঁড়াবেন না। এদিন এই বিষয়ে তাঁকে প্রশ্ন করা হলে তাঁর গলায় একটি আলাদাই সুর শোনা যায়। তিনি জানান, দল যদি চায় তাহলে তিনি নির্বাচনে লড়াই করলেও করতে পারেন। তবে তিনি এও জানাতে ভোলেন না যে, ভোটে দাঁড়ানোর প্রসঙ্গে এখনও চূড়ান্ত কোনও সিদ্ধান নেননি প্রিয়াঙ্কা। উল্লেখ্য, গত জানুয়ারি মাসেই সক্রিয়ভাবে রাজনীতিতে পা রাখেন সোনিয়া তনয়া। খবর পাওয়া যাচ্ছিল, তিনি হয়তো মা সোনিয়ার গড় রায়বেরেলি কেন্দ্র থেকে ভোটে দাঁড়াতে চলেছেন। কিন্তু এই খবরকে পুরোপুরি নস্যাৎ করে কংগ্রেস শিবির।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here